মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২, ১০:৪১ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
পবিত্র আশুরা আজ বঙ্গমাতা ছিলেন বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক সহযোদ্ধা-এমপি আবু জাহির বানিয়াচঙ্গে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্থদের তথ্য প্রেরণে ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অনিয়ম ও স্বজনপ্রীতির অভিযোগ ॥ তালিকায় রয়েছে একই পরিবারের ৪ জন আছে মিঠামইন ও অষ্টগ্রাম উপজেলার লোক ক্যান্সারসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত ৯ জনের মাঝে অনুদানের চেক বিতরণ দুর্দিনে বঙ্গবন্ধুকে অনুপ্রেরণা দিয়েছেন বঙ্গমাতা-মিজানুর রহমান শামীম জালালাবাদ এসোসিয়েশনের পুনর্বাসন কার্যক্রমে ১০ লাখ টাকা অনুদান দিয়েছেন সায়হাম গ্রুপের পরিচালক সৈয়দ ইশতিয়াক ও সৈয়দ শাফকাত হবিগঞ্জ-১ আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী দুলাল আহমদ তালুকদার নিজামপুর ইউনিয়ন জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক কমিটি অনুমোদন ॥ আহ্বায়ক আসগর আলী, যুগ্ম আহ্বায়ক ফরিদ মিয়া থানা পুলিশের নাম ভাঙ্গিয়ে সোর্স ও দালালদের অপকর্ম জ্বালানি তেল ও সারের দাম কমানোর দাবিতে হবিগঞ্জে বাসদের বিক্ষোভ

শুকনো মৌসুমের আগেই ডাম্পিং চালু হবে-মেয়র সেলিম ॥ হবিগঞ্জ পৌরসভার ১১৬ কোটি ৮৭ লাখ টাকার বাজেট ঘোষণা

  • আপডেট টাইম শুক্রবার, ১ জুলাই, ২০২২
  • ১৬ বা পড়া হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টার ॥ নতুন কোন করারোপ ছাড়াই হবিগঞ্জ পৌরসভার ১১৭ কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা করেছেন মেয়র আতাউর রহমান সেলিম। হবিগঞ্জ পৌরভবনে বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১ টায় আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে ২০২২-২০২৩ ইং অর্থবছরের জন্য ওই বাজেট ঘোষণা করা হয়।
ঘোষিত বাজেটে সর্বমোট আয় দেখানো হয়েছে ১১৬ কোটি ৮৭ লাখ ৭২ হাজার ৫৫২ টাকা এবং ব্যয় দেখানো হয়েছে ১১৫ কোটি ৭২ লাখ ৯১ হাজার ৬৮২ টাকা। বাজেটে উদ্বৃত্ত দেখানো হয়েছে ১ কোটি ১৪ লাখ ৮০ হাজার ৮৭০টাকা। রাজস্ব খাতে মোট আয় দেখানো হয়েছে ১২ কোটি ৮ লাখ ৮২ হাজার টাকা। ব্যয় দেখানো হয়েছে ১১ কোটি ৭৫ হাজার ২১ হাজার ১৩০ টাকা। উন্নয়ন খাতে আয় দেখানো হয়েছে ১০৪ কোটি ৭৮ লাখ ৯০ হাজার ৫৫২ টাকা। ব্যয় দেখানো হয়েছে ১০৩ কোটি ৯৭ লাখ ৭০ হাজার ৫৫২ টাকা।
ঘোষিত বাজেটে রুরাল এক্সেস রোড ইম্প্রুভমেন্ট প্রজেক্ট ইন সিলেট ডিভিশনের আওতায় ড্রেন ও রাস্তা বাস্তবায়নে আয় ও ব্যয় দেখানো হয়েছে ৫০ কোটি টাকা। একই প্রকল্পের আওতায় পুরাতন খোয়াই নদীর পাড়ে রাস্তা ও ওয়াকওয়ে নির্মাণ এবং সৌন্দর্য বর্ধনখাতে ব্যয় ধরা হয়েছে ৫ কোটি টাকা, শিশু পার্ক নির্মাণ ২ কোটি টাকা, বাস টার্মিনাল উন্নয়ন ৩ কোটি টাকা, ট্রাক টার্মিনাল উন্নয়ন ৫ কোটি টাকা, পুরাতন পৌরসভা প্রাঙ্গনে মার্কেট নির্মাণ ৫ কোটি টাকা। চৌধুরী বাজারে মার্কেট নির্মাণ ৫ কোটি টাকা, পৌর শ্মশানঘাট উন্নয়ন ৩০ লাখ টাকা, রাজনগর কবরস্থান উন্নয়ন ১ কোটি টাকা এবং শায়েস্তানগর ট্রাফিক পয়েন্ট এর সৌনদর্য্যবর্ধন ৫০ লাখ টাকা।
রাজস্ব খাতে উল্লেখযোগ্য ব্যয়গুলো হলো শ্মশানঘাট এলাকায় পৌর হকার্স মার্কেট নির্মাণ ৫৭ লাখ টাকা, রাস্তা মেরামত ও রক্ষনাবেক্ষন ২০ লাখ টাকা, ঠিকাদারী বিল প্রদান ৮০ লাখ টাকা ইত্যাদি।
সংবাদ সম্মেলনের লিখিত বক্তব্যে মেয়র আতাউর রহমান সেলিম বলেন, হবিগঞ্জ পৌরসভার নতুন ডাম্পিং স্পট বাস্তবায়ন এখন শুধু সময়ের ব্যাপার। তিনি বলেন, ডাম্পিং স্পটে যাওয়ার রাস্তা পানি উন্নয়ন বোর্ডের মাধ্যমে প্রায় দেড় কোটি টাকা ব্যয়ে বর্তমানে বাস্তবায়নের পথে। ৯০ লাখ টাকা ব্যয়ে ডম্পিং স্পটের বাউন্ডারী ওয়াল করছে হবিগঞ্জ পৌরসভা। মেয়র বলেন, আগামী শুকনো মৌসুমের আগেই বাইপাসের আবর্জনার স্তুপ নতুন ডাম্পিং স্পটে অপসারণ করা হবে।
মেয়র বলেন, বর্তমানে ১৯টি রাস্তা নির্মাণ, ২টি ড্রেন নির্মাণ, ১টি ঘাটলা নির্মাণ, নাজির সুপার মার্কেটের সম্মুখ থেকে হকার্স মার্কেট শ্মশানঘাট এলাকায় স্থানান্তর ও পিটিআই রোডে পৌর স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্র বাস্তবায়ন হচ্ছে। পুরাতন পৌরভবনের জমিতে ও চন্দ্রনাথ পুকুরের পূর্ব পাড়ে মার্কেট নির্মানের পরিকল্পনার কথা উল্লেখ করেন তিনি।
সাংবাদিক সম্মেলনে পৌর নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ ফয়েজ আহমদ ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন পৌর কাউন্সিলর মোঃ আবুল হাসিম, মোঃ জাহির উদ্দিন, পান্না কুমার শীল, মোহাম্মদ জুনায়েদ মিয়া, গৌতম কুমার রায়, শাহ সালাউদ্দিন আহাম্মদ টিটু, মোঃ সফিকুর রহমান সিতু ও খালেদা জুয়েল।
সাংবাদিক সম্মেলনে বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন মেয়র আতাউর রহমান সেলিম।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2013-2021 HabiganjExpress.Com
Design and Development BY ThemesBazar.Com