বৃহস্পতিবার, ১৩ জুন ২০২৪, ০১:২৮ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
সিগন্যাল অমান্য করে ক্রসিংয়ে প্রবেশ ॥ লস্করপুরে ট্রেনের ধাক্কায় সিএনজি যাত্রী নিহত বানিয়াচং হাসপাতালে সরকারি নিয়ম ভঙ্গ করে রোগীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত অর্থ আদায় বাজেট অধিবেশনের বক্তব্যে এমপি আবু জাহির ॥ দেশের মানুষ এখন ‘গরীব বাঁচানোর বাজেট’ শ্লোগানে আনন্দ-উল্লাস করে শায়েস্তাগঞ্জে ৪ কেজি গাঁজাসহ যুবক গ্রেপ্তার জেলা ছাত্রদল সভাপতি রিংগনের মুক্তির দাবিতে নবীগঞ্জে তৌহিদ চৌধুরীর নেতৃত্বে বিক্ষোভ মিছিল চুনারুঘাটে ৬ বছরের ব্যবধানে দুই ভাইকে হত্যা ॥ গ্রেপ্তার ৩ বানিয়াচংয়ে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন বাস্তবায়নে সেমিনার অনুষ্টিত এমপি আবু জাহির সিঙ্গাপুরে গেছেন নবীগঞ্জে হাওরে অভিযান চেক ডিজঅনার মামলায় কাউন্সিলর পান্না গ্রেপ্তার

সানজানা শিরীনের বিরুদ্ধে সাইবার ট্রাইব্যুনালে মামলা

  • আপডেট টাইম সোমবার, ৩ জুন, ২০২৪
  • ১৯ বা পড়া হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টার ॥ পারিবারিকভাবে দেয়া নাম শিরীন বেগম। কিন্তু যোগাযোগ মাধ্যমে পরিচিত নাম সানজানা শিরীন হিসেবে। নরমাল ডেলিভারী করে যোগাযোগ মাধ্যমে রাতারাতি খ্যাতি পাওয়া সেই সানজানা শিরীন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের কারণেই হয়েছেন সমালোচিত। হয়েছেন বিতর্কিত। আলোচনায় এসেছেন বিভিন্ন সময় নানা মন্তব্য ও পোষ্ট করে। সেই শিরীন সম্প্রতি নিজের চাচাতো ভাইয়ের ছবি পোষ্ট করে মানহানিকর মন্তব্য করায় তার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে সিলেট সাইবার ট্রাইব্যুানাল আদালতে। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে তদন্তের জন্য হবিগঞ্জ সদর মডেল থানার অফিসার ইনচার্জকে নির্দেশ দিয়েছেন। গত ১৫ মে শহরতলীর বহুলা গ্রামের আতর আলীর পুত্র বিসমিল্লাহ কম্পিউটারের পরিচালক মোঃ এমদাদুল হক (৩২) বাদি হয়ে মোঃ ইসমাইল শিকদারের স্ত্রী ও সৈয়দ আলীর কন্যা সানজানা শিরীন ওরফে শিরীন বেগমকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন। মামলার বিবরনে জানা যায়, সানজানা শিরীন হবিগঞ্জ শহরতলীর বহুলা গ্রামে বৃদ্ধাশ্রম চালু করছেন এতে সহায়তা প্রয়োজন মর্মে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে প্রচার করছেন। তিনি সাধারণ মানুষকে বোকা বানিয়ে দেশ ও দেশের বাহির থেকে লক্ষ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নিয়ে আত্মসাত করেছেন। বৃদ্ধাশ্রমের নামে টাকা আত্মসাতের বিষয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যবহারকারীরা প্রতিবাদ করে সমালোচনা করেন।
অথচ শিরীন তার চাচাতো ভাই বাদী এমদাদুল হকের নামে তার অন্য সহযোগী মিলে বানোয়াট স্কিনশর্ট প্রচার করে “সানজানা তার ভাই এর দেড় কোটি টাকা ঋণ দিছে মানুষকে। পরে এমদাদুলের মোবাইল নম্বর ও ছবি দিয়ে শিরীন তার ফেসবুকে পোষ্ট করেন ‘ঘরের শত্রু বিভীষণ’ আজকের ভেতরে লাইভে এসে ভুল স্বীকার না করলে মানহানির মামলা হবে। লাষ্ট ৫ দিন ধরে গুণধর আপন চাচাতো ভাইয়ের মেসেজের ওপর ভিত্তি করে আমার সামাজিক ও পারিবারিক জীবন বিপর্যস্ত, ভাইর দেড় কোটি টাকা ঋণ আর বোনের ৪০ লাখের কেয়ার ভিসার হিসাব তারে দিতে হবে। আমার সহজ সরল বাপের সম্মান বৃদ্ধ বয়সে শেষ করতে উঠে পড়ে লাগছে। আমার বড় ভাই ৫ ওয়াক্ত নামাজী, কুচক্রি মহল ওনাকে মাদকাসক্ত বলে প্রচার করছে। আমার চাচাতো ভাই আমার কাছে ২ বার টাকা চাইছে দিসিনা আমার ভাইর কাছে সেদিন ব্যাংক থেকে লোন তোলার অনুরোধে আমার ভাই রাজি হয় নাই বলে প্রতিহিংসার স্বীকার, লাষ্ট ৫ দিন ধরে আমার পরিবারের সম্মানহানি হলো তার বিচার তারে দিতে হবেই। তার নাম হলো লাজু। ফেসবুকে এমদাদুল হককে নিয়ে এমন মানহানিকর অসংখ্য পোষ্ট দিয়েছেন সানজানা শিরীন। যে কারণে তার মানহানি হয়েছে। যে কারণে তিনি তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান খুলতে পারছেন না। লোকজন তাকে নিয়ে নানাভাবে নানা মন্তব্য করছেন। এতে তিনি মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছেন। এ বিষয়ে সানজানা শিরীনের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, আমি ফোনে বক্তব্য দেইনা, বক্তব্য নিতে হলে আমার কাছে আসেন।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2013-2021 HabiganjExpress.Com
Design and Development BY ThemesBazar.Com