মঙ্গলবার, ২৬ মে ২০২০, ০৩:৪৯ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
শ্রীমঙ্গলে যুবলীগ নেতা সেলিমের উদ্যোগে সাড়ে ৫শ অসহায় মানুষের মাঝে ঈদ সামগ্রী বিতরণ নবীগঞ্জের বিভিন্ন গ্রামে ড. রেজা কিবরিয়ার পক্ষে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ হবিগঞ্জে শেষ হয়েছে ৫দিন ব্যাপি ইয়ূথ এসোসিয়েশন অব ইউকে এর খাদ্য সহায়তা বিতরণ নবীগঞ্জে গৃহহীন দুই বীর সেনা মুক্তিযোদ্ধাকে সেনাবাহিনীর বাসস্থান উপহার আলমগীর চৌধুরীর সৌজন্যে নবীগঞ্জে ১৬৫ পরিবারকে ঈদ উপহার প্রদান নবীগঞ্জে স্বাস্থ্য বিধি অমান্য করায় ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা “বঙ্গবন্ধু ছাত্র একতা পরিষদ” নেতা রায়হান এর উদ্যোগে ইফতার বিতরণ এখন প্রমান করার সময় মানুষ মানুষের জন্য-মোতাচ্ছিরুল ইসলাম অনাহারী মুখ খাবার তুলে দিচ্ছেন হবিগঞ্জ ছাত্র সমন্বয় ফোরাম বাগুনিপাড়া ডিফেন্স হোল্ডার এ্যাসোসিয়েশন ঈদ উপহার বিতরন
মাধবপুরে স্কুল ছাত্রীর গোসলের দৃশ্য ধারনের প্রতিবাদ করায় বাড়ি ঘরে হামলা আহত ৮

মাধবপুরে স্কুল ছাত্রীর গোসলের দৃশ্য ধারনের প্রতিবাদ করায় বাড়ি ঘরে হামলা আহত ৮

মাধবপুর প্রতিনিধি ॥ মাধবপুরে ক্যামেরায় স্কুল ছাত্রীদের গোসলের দৃশ্য ধারন করার প্রতিবাদ করায় বাড়িতে হামলা করে নারী, শিশুসহ ৮জন কে আহত করা হয়েছে। হত্যার উদ্যেশে পুকুরে ছুড়ে ফেলে দেওয়া হয় দেড় বছরের এক শিশু সন্তানকে। রোববার বিকালে উপজেলার ছাতিয়াইন ইউনিয়নের মনিপুর গ্রামে এঘটনা ঘটে।
এঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে রাতেই পুলিশ খেলু মিয়া (৫৫)সহ দুই নারী কে গ্রেফতার করে।
স্থানীয় এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রোববার দুপুরে ওই গ্রামের ইন্দুপাড়ার একটি পুকুরে দশম শ্রেণীর ছাত্রী সহ কয়েকজন নারী গোসল করছিল। আে সময় পুকুর পাড়ে বসে ডিএসএলআর ক্যামেরা দিয়ে গোসলের দৃশ্য ধারন করেন একই এলাকার অনু মিয়ার ছেলে সৌদি প্রবাসী হুমায়ূন মিয়া, মৃত শাহজাহান মিয়ার ছেলে শরীফ মিয়া, মৃত সায়েদ মিয়ার ছেলে বায়েজিদ মিয়া, আল্লাউদ্দিনের ছেলে সাহাবুদ্দিন মিয়া। বিষয়টি আচ করতে পেরে নারীরা তাদের পরিবারের সদস্যদের কাছে অবহিত করে। এ সময় ইন্দু পাড়ার মহাদেব সরকারের ছেলে বিমল সরকার কয়েকজন লোক নিয়ে পুকুরে পাড়ে বসা হুমায়ুনের কাছ থেকে ক্যামেরা আটকের চেষ্টা চালায়। এ নিয়ে তাদের মধ্যে বাকবিতন্ডা হয়। পরে হুমায়ূন বাড়িতে গিয়ে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে একদল লোক নিয়ে তাদের বাড়িতে হামলা চালায়। ভাংচুর করে বাড়ি ঘর। তাদের হামলায় আহত হয়েছে ৮জন। গুরুতর আহত ৪জনকে মাধবপুর উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে থেকে হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে। এর মধ্যে এক নারী কে আশংকাজনক অবস্থায় সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
ইন্দুপাড়ার বাবুল সরকার ও অবিনাশ সরকার জানান, এ সময় হামলাকারীরা বিমল সরকারের দেড় বছরের একটি শিশু বাচ্চাকে মায়ের কোল থেকে কেড়ে নিয়ে পুকুরে ছুড়ে ফেলে।
খবর পেয়ে মাধবপুর চুনারুঘাট সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার নাজিম ও থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ইকবাল হোসেন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। রাতে পুলিশ ঘটনার সাথে জড়িত খেলু মিয়া সহ দুই নারী কে গ্রেফতার করে। এ ব্যাপারে মনিপুর গ্রামের বাসুদেব সরকার বাদী হয়ে ১৭ জনের নাম উল্লেখ করে থানায় একটি মামলা রুজু করেছেন। মাধবপুর থানার ওসি (তদন্ত) গোলাম দস্তগির আহমেদ সত্যতা নিশ্চত করে বলেন, ছাতিয়াইন তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ কামরুল ইসলামকে মামলাটি তদন্তের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। পুলিশ তিনজন কে গ্রেফতার করেছে।
এঘটনার পর থেকে ওই এলাকার নিরীহ বাসিন্দারা নিরাপত্তাহীনতা ও আতংকে রয়েছে। হামলাকারিরা প্রভাব শালী হওয়ায় তাদের মধ্যে আতংক ও উৎকন্ঠা দেখা দিয়েছে। স্হানীয় চেয়ারম্যান সহিদ উদ্দিন হামলাকারীদের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তি দাবি করেন।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com