শনিবার, ১৭ অগাস্ট ২০১৯, ০৫:৪৪ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
সদর উপজেলার যমুনাবাদে গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু চুনারুঘাটে চোরাই সেগুন কাঠ উদ্ধার যুক্তরাজ্যে হবিগঞ্জবাসীর উদ্যোগে ঈদ পূনর্মিলনী “আনন্দ সন্ধ্যা” নবীগঞ্জের বনকাদিপুর আমজাদ ॥ আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আর নেই বঙ্গবন্ধু ছিলেন আধুনিক বাংলার স্বপ্নদ্রষ্টা ॥ এমপি আবু জাহির নবীগঞ্জে বিষাক্ত সাপের কামড়ে গৃহবধু আহত সীমেরগাঁও গ্রামে সংঘর্ষে টেটাবিদ্ধ ২ জনসহ আহত ১০ সৌদি আরবের জেদ্দা কনস্যুলেট এর উদ্যোগে জাতীয় শোক দিবস পালন ॥ বিশেষ অতিথি হিসাবে মন্ত্রী মাহবুব আলীর যোগদান মাধবপুরে সাজাপ্রাপ্ত দুই আসামী গ্রেপ্তার নবীগঞ্জ উপজেলা ও পৌর জাতীয় পার্টির ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্টিত
মহান মে দিবস আজ

মহান মে দিবস আজ

এক্সপ্রেস রিপোর্ট ॥ আজ ১ মে। মহান মে দিবস। দীর্ঘ বঞ্চনার শিকার রক্তঝরা শ্রমজীবী মানুষের অধিকার আদায়ের দিন। মাঠে ঘাটে কলকারখানায় খেটে খাওয়া মানুষের এক গৌরবময় ইতিহাসের দিন। বিশ্বের মেহনতী জনতা ঐক্যবদ্ধ আন্দোলন ও সংহতির প্রতীক হিসেবে এ দিনটি পালন করছে।
দীর্ঘ বঞ্চনা আর শোষণের শিকার হতে থাকা শ্রমিক শ্রেণি এই বঞ্চনা আর শোষণ থেকে মুক্তি পেতে ১৮৮৬ সালের এই দিনে বুকের রক্ত ঝরিয়েছিল। তাদের রক্তেরঞ্জিত হয়ে সৃষ্টি হয়েছিল অমর এক উপাখ্যান। ১৮৮৬ সালের মে মাসে শ্রমঘণ্টা ৮ ঘণ্টা নির্ধারণের দাবিতে আমেরিকার শিকাগো শহরের ‘হে মার্কেটে’ নির্যাতিত শ্রমিকদের শান্তিপূর্ণ জনসভায় মালিক এবং সরকারপক্ষের বর্বরোচিত আক্রমণ, গুলিবর্ষণ ও হত্যাযজ্ঞের মধ্যদিয়ে ‘মহান মে দিবস’-এর সূচনা হয়। সেই দিন মালিক ও সরকার শ্রেণির নির্দেশে গুলি চালালে জীবন দেয় ১০ শ্রমিক। আর রক্ত ঝরে অসংখ্য শ্রমিকের। আর এতেও জনতার জোয়ার থামিয়ে দিতে পারেনি শোষকশ্রেণি। ১ মে শুরু হওয়া শ্রমিকদের এ আন্দোলন অব্যাহত ছিল আরও কয়েকদিন। অব্যাহত থাকে ধর্মঘটও। ৩ মে একটি ফসল কাটার কারখানার সামনে শ্রমিক সভায় পুলিশের নির্বিচার গুলিতে প্রাণ হারায় আরও ৬ শ্রমিক। হত্যার প্রতিবাদে ৪ মে মার্কেট স্কয়ারে স্মরণাতীতকালের বৃহত্তম শ্রমিক সমাবেশে আবারও বর্বরোচিত হামলা চালায় পুলিশ। প্রাণ হারায় আরও ৪ শ্রমিক। পরে ৬ অক্টোবর মিথ্যা মামলায় অভিযুক্ত চার শ্রমিক নেতাকে ফাঁসি দেওয়া হয়। বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে সারাবিশ্বে। গড়ে ওঠে শ্রমিক-জনতার বৃহত্তর ঐক্য। অবশেষে দৈনিক আট ঘণ্টা কাজের দাবি মেনে নিতে বাধ্য হয় যুক্তরাষ্ট্র সরকার। তিন বছরের মাথায় ১৮৮৯ সালের ১৪ জুলাই প্যারিসে অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় আন্তর্জাতিক শ্রমিক সম্মেলনে শিকাগো ট্র্যাজেডিকে ‘আন্তর্জাতিক শ্রমিক সংহতি দিবস’ হিসেবে পালন করার ঘোষণা দেয়া হয়। সেই থেকে আজ অবধি শ্রমিকের ন্যায়সঙ্গত অধিকার আদায়ের সংগ্রামী চেতনার অমিত তেজ সঞ্চারের দিন হিসেবে এ দিবসটি পালিত হয়ে আসছে। ১৮৯০ সাল থেকে প্রতি বছর দিবসটি বিশ্বের বিভিন্ন দেশে পালিত হতে শুরু করে ‘মে দিবস’ নামে। মে দিবস শ্রমজীবী মানুষের আত্মত্যাগের কথা স্মরণ করিয়ে দেয়। যে কোন সঙ্কটে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার দৃঢ় অঙ্গীকার নিয়ে মে দিবস পালন করছে বিশ্বের সব দেশের শ্রমিকরা।
মে দিবস উপলক্ষ্যে আজ বিভিন্ন সংগঠন আয়োজন করেছে মে দিবসের নানা কর্মসূচি।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com