সোমবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২০, ০৩:৪৪ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
সাবেক অর্থমন্ত্রী কিবরিয়া হত্যার ১৫ বছর আজ ॥ হত্যা মামলার বিচার শুরু হলেও চার্জ গঠন হয়নি বিস্ফোরক মামলার নবীগঞ্জে পুলিশ কোপানোর ঘটনার সাড়ে ৪ মাসেও অধরা সন্ত্রাসী মুছা ও পারভেজ শহরের বিদ্যুৎ বিল খেলাপীর বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান ১২ লাখ টাকা জরিমানা ও মামলা নবীগঞ্জে ইউপি চেয়ারম্যানসহ সদস্যরা অবরুদ্ধ ॥ উত্তেজনা শায়েস্তাগঞ্জে আইন-শৃংখলা কমিটির সভায় এমপি আবু জাহির ॥ কিছু সংখ্যক অপরাধীদের জন্য যাতে উন্নয়ন বাধাগ্রস্ত না হয় সেজন্য সতর্ক থাকতে হবে নারী কেলেঙ্কারীর ঘটনায় আটক এপিপি আবুল কালামের জামিন শুনানী আজ গ্রেফতারকৃত ভূয়া এএসপি রাহুলের সহযোগীদের অনুসন্ধানে মাঠে পুলিশ শহরবাসীকে ধুলোবালির কবল থেকে রক্ষা করতে হবিগঞ্জ পৌরসভার ওয়াটার ¯েপ্র ট্রাক চালু অনলাইন পত্রিকা ‘হবিগঞ্জ জার্নাল’ এর আনুষ্ঠানিক আত্মপ্রকাশ শচীন্দ্র কলেজে-অতিরিক্ত পুলিশ শেখ সেলিম ॥ গ্রাম্য, দাঙ্গা, ইভটিজিং, মাদক প্রতিরোধে শিক্ষার্থীদের গনসচেতা সৃষ্টি করতে হবে
সুতাং এলাকার ৪ মাদ্রাসার ছাত্র নিখোঁজের ২৪ ঘন্টার মধ্যে উদ্ধার

সুতাং এলাকার ৪ মাদ্রাসার ছাত্র নিখোঁজের ২৪ ঘন্টার মধ্যে উদ্ধার

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বাহুবলে চার শিশু হত্যার শোক কাটতে না কাটতেই এবার হাফিজি মাদ্রাসার নিখোজ ৪ শিশু ছাত্রের সন্ধান পাওয়া গেছে। এর মধ্যে ৩ জন বালিখাল থেকে আর ১ জন স্বেচ্ছায় বাড়ি চলে এসেছে।
শিশুরা হচ্ছে-বাহুবল উপজেলার পশ্চিম শাহাপুর প্রকাশিত চারগাঁও গ্রামের আহমদ রশিদ মনু-এর পুত্র তানভীর রশিদ রাফি (১৩), তার ভাগিনা একই উপজেলার আব্দানারায়ন গ্রামের আব্দুল আহাদের পুত্র ইমতিয়াজ আহমেদ (১২), শায়েস্তাগঞ্জ থানার দরিয়াপুর গ্রামের আব্দুল আওয়ালের পুত্র সুহানুর রহমান (১১) ও নবীগঞ্জ উপজেলার সুজাপুর গ্রামের আব্দুল্লাহর ছেলে আজহারুল ইসলাম নয়ন (১২)। এরা সবাই হবিগঞ্জ সদর উপজেলার শায়েস্তাগঞ্জ থানার সুতাংবাজার এলাকার বাছিরগঞ্জ পূর্ব নোয়াগাঁও হাফিজিয়া মাদ্রাসার আবাসিক ছাত্র। গত শুক্রবার ১১ মার্চ বিকেলে এরা নিখোঁজ হয়।
সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, নিখোঁজ ৪ ছাত্র শুক্রবার বিকেলে পাঞ্জাবি বানানোর কথা বলে মাদ্রাসা থেকে বের হয়ে হবিগঞ্জ সদর উপজেলার শায়েস্তাগঞ্জে যায়। এরপর থেকে তারা রাত পর্যন্ত মাদ্রাসায় যায়নি। বিষয়টি রাতেই মাদরাসার মুহতামিম হাফেজ মোজাক্কির হোসাইন মোবাইল ফোনে ছাত্রদের অভিভাবকদের জানান। এ খবর পাওয়ার পর প্রত্যেক অভিভাবকই সম্ভাব্য সকল স্থানে শিশুদের খোঁজাখুঁজি শুরু করে কোথায় তাদের পাওয়া যায়নি। গতকাল শনিবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে নিখোঁজ শিশু রাফি’র পিতা বাহুবল উপজেলা খেলাফত মজলিসের সাধারণ সম্পাদক আহমদ রশিদ মনু শায়েস্তাগঞ্জ থানায় একটি জিডি করেন।
শিশুরা জানায়, এরা পারাবত ট্রেনে শায়েস্তাগঞ্জ থেকে সিলেট যায়। সেখানে শাহ জালাল (রঃ) এর মাজার জিয়ারত করে। রাতে পুনরায় ট্রেনে করে শায়েস্তাগঞ্জ আসে। সুহানুর রহমান বাড়ি চলে যায়। এবং তানভীর রশিদ রাফি, তার ভাগ্নে ইমতিয়াজ আহমেদকে নিয়ে আজহারুল ইসলাম নয়ন এর ফুফুর বাড়ি বানিয়াচঙ্গ উপজেলার বালিখাল চলে যায়। পরে তাদের আত্মীয় স্বজন খবর পেয়ে তাদের বাড়ি নিয়ে যায়। পরে পুলিশ ৪ শিশুকে তাদের আত্মীয় স্বজনের জিম্মায় দেয়।
এ ব্যাপারে পূর্ব নোয়াগাঁও হাফিজিয়া মাদ্রাসার শিক্ষক হাফেজ মওলানা সেলিম আহমদ জানান, শুক্রবার মাদ্রাসা বন্ধ ছিল। জুমআর নামাজের পর থেকে ৪ ছাত্রকে পাওয়া যায়নি। তিনি জানান, স্থানীয়রা ওইদিন বিকেলে তাদের হবিগঞ্জ সদর উপজেলার সুতাং বাছিরগঞ্জ এলাকায় দেখতে পান। এ সময় ছাত্ররা জানায়, তারা শায়েস্তাগঞ্জে পাঞ্জাবি বানানোর জন্য যাচ্ছে। এরপর থেকে তাদের খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না।
এদিকে  নিখোঁজ হওয়া ৪ শিশুর মধ্যে একজনের পিতা আহমদ রশিদ মনু বলেন, আমার ছেলে রাফি, ভাগিনা ইমতিয়াজ ও তাদের সহপাঠী সুহানুর এবং নয়ন সহ বেশ কিছু শিশু ওই মাদ্রাসার আবাসিক ছাত্র। মাদরাসা কর্তৃপক্ষের তত্ত্বাবধানে থেকে তারা হাফিজি পড়াশুনা করে। গত মঙ্গলবার আমার পুত্র বাড়ি এসেছিল। ওই দিনই বিকেল বেলা আবার চলে যায়।
নিখোঁজ শিশু সাহনুরের বাবা আব্দুল আউয়াল জানান, শুক্রবার বেলা ২টায় তার সাথে ওই শিশুদের শায়েস্তাগঞ্জ নছরতপুর এলাকায় দেখা হয়। এসময় তারা জানিয়েছিল পাঞ্জাবি বানানোর জন্য শায়েস্তাগঞ্জ স্টেশন রোড এলাকায় যাচ্ছে। রাতে মাদ্রাসা থেকে তাকে ফোন করে জানানো হয়, তার ছেলেসহ অন্যরা মাদ্রাসায় ফিরে যায়নি।
এ ব্যাপারে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. শহীদুল ইসলাম জানান, তিনি বিষয়টি শুনেছেন। খতিয়ে দেখার জন্য মাদ্রাসায় পুলিশ পাঠানো হয়েছে।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com