রবিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৯, ১১:৪৭ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
চুনারুঘাট সীমান্তের মাদক সম্রাট দুলন গ্রেফতার ॥ এলাকায় উল্লাস, মিষ্টি বিতরণ শহরের চাঞ্চাল্যকর মা ও মেয়েকে হত্যার দায়ে তাজুল গ্রেফতার হবিগঞ্জে কনফারেন্সে ড. বোরহান উদ্দিন ॥ ভারত উপমহাদেশে আ’লা হযরত ছিলেন আশির্বাদ স্বরূপ বাহুবলে দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে চালক ও হেলপার নিহত খেলাধূলার উন্নয়নে আন্তরিকতা অব্যাহত থাকবে-এমপি আবু জাহির বাহুবলে ৭ কেজি গাঁজাসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী গ্রেপ্তার বাংলাদেশ পুস্তক প্রকাশক ও বিক্রেতা সমিতি হবিগঞ্জ জেলা শাখার বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত ঈদে মিলাদুন্নবী (দঃ) উপলক্ষে বিশেষ পরামর্শ সভা অনুষ্টিত বানিয়াচঙ্গের এক গৃহবধূ সাপের কামড়ে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে বাইপাস সড়কে অবৈধভাবে আবারো জায়গা দখল চলছে
মহানবী (সঃ) কে কটাক্ষকারী ইকরাম বাজারের শ্রীকান্তের রিমান্ডের আবেদন ॥ আগামীকাল ইকরাম প্রতিবাদ সমাবেশ

মহানবী (সঃ) কে কটাক্ষকারী ইকরাম বাজারের শ্রীকান্তের রিমান্ডের আবেদন ॥ আগামীকাল ইকরাম প্রতিবাদ সমাবেশ

মখলিছ মিয়া, বানিয়াচং থেকে ॥ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে মহানবী (সঃ) কে কটাক্ষকারী বানিয়াচং উপজেলার ইকরাম বাজারের কিশোর টেলিকমের মালিক বাল্লা গবিন্দপুর গ্রামের ধীনের চন্দ দাশের পুত্র শ্রীকান্ত চন্দ্র দাশের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরো ১০/১৫ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করা হয়েছে। এদিকে ঘটনার ব্যাপারে শ্রীকান্তকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ আদালতে ৫ দিনের রিমান্ডের আবেদন জানিয়েছে। অপর দিকে এলাকাবাসীর উদ্যোগে আগামীকাল রবিবার ইকরাম সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে এক প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করা হয়েছে।
গত বৃহস্পতিবার বানিয়াচং থানায় তথ্য প্রযুক্তি সংশোধন আইন ২০১৩ এর ৫৭ ধারায় ফেইসবুকে আইডি তৈরী করে মিথ্য ও অশ্লীল মন্তব্য করে ধর্মীয় অনূভূতিতে আঘাতসহ উস্কানীর অপরাধে এ মামলাটি দায়ের করা হয় (মামলা নং-১০,তারিখ-১০/৭/১৪)। ইকরাম গ্রামের ধর্মপ্রাণ মুসলমানদের পক্ষে মামলার বাদী হয়েছেন ইকরাম গ্রামের মুখলেছুর রহমান এর ছেলে মোঃ মোস্তফা কামাল (এসিয়ান)। মামলাটির তদন্তের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে বানিয়াচং থানার এসআই আব্দুস সহিদকে। এদিকে মামলা দায়ের পরপরই দায়িত্ব প্রাপ্ত অফিসার এসআই শহীদ এ সংক্রান্ত বিষয়ে তদন্ত শুরু করেছেন বলে এ প্রতিনিধিকে জানান। এ দিকে গ্রেফতারকৃত শ্রীকান্ত দাশকে আদালত হাজির করা হলে বিজ্ঞ আদালত জামিন না-মঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরণ করেছেন।
উল্লেখ্য, বানিয়াচঙ্গের ইকরাম বাজারের কিশোর টেলিকম এর মালিক সুজাতপুর ইউনিয়নের গবিন্দপুর গ্রামের ধীনেশ চন্দ্র দাসের পুত্র শ্রীকান্ত চন্দ্র দাস তার সামাজিক যোগাযোগ ফেইসবুক আইডি থেকে মহানবী (সঃ) কে কটাক্ষ করে মন্তব্য পোস্ট করে। গতকাল সকালে ওই মন্তব্য তার ফেইসবুকের ফ্রেন্ড ইকরাম গ্রামের মোশাহিদ, সম্রাট ও মোশাররফ দেখতে পান। সাথে সাথে তারা বাজারে গিয়ে শ্রীকান্তর নিকট এ মন্তব্য পোষ্ট করার কারন জানতে চায়। এদিকে বিষয়টি মুহর্তে ছড়িয়ে পড়লে হাজার হাজার ধর্মপ্রান মুসলমান বাজারে জড়ো হন। ছড়িয়ে পড়ে উত্তেজনা। এ সময় উত্তেজিত জনতা শ্রীকান্তকে ধরে আনার জন্য ছুটে গেলে সুজাতপুর ইউপি চেয়ারম্যান এনাম খান চৌধুরী ফরিদ, ইউপি মেম্বার রঙ্গু মিয়াসহ স্থানীয় মুরুব্বীরা উত্তেজিত জনতাকে নিবৃত্ত করার চেষ্টা করেন। কিন্তু হাজার হাজার জনতা বাজারে শ্রীকান্তের দোকান ঘেরাও করে রাখে। এরই মধ্যে ঘটনার খবর পৌছুলে বানিয়াচঙ্গ থানার ওসি লিয়াকত আলীর নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছলেও তারা শ্রীকান্তকে উদ্ধার ও পরিস্থিতি সামাল দিতে ব্যর্থ হয়। এক পর্যায়ে সহকারী পুলিশ নাজমুল ইসলামের নেতৃত্বে হবিগঞ্জ থেকে বিপুল সংখ্যক দাঙ্গা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে দোকান থেকে শ্রীকান্তকে উদ্ধার করে। এ সময় উত্তেজিত জনতা শ্রীকান্তকে তাদের হাতে তুলে দেবার জন্য পুলিশের নিকট দাবী জানায়। কিন্তু পুলিশ শ্রীকান্তকে নিয়ে আসার সময় জনতা শ্রীকান্তকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করতে শুরু করে। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনতে পুলিশ ৪০ রাউন্ড রাবার বুলেট ও ১ রাউন্ড টিয়ার সেল নিক্ষেপ করে। ইটের আঘাতে ইউপি চেয়ারম্যান এনাম খান চৌধুরী ফরিদ মাথায় মারাত্মক আঘাতপ্রাপ্ত হন। পরে পুলিশ শ্রীকান্তকে উদ্ধার করে হবিগঞ্জ থানায় নিয়ে আসে।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com