শনিবার, ১৭ অগাস্ট ২০১৯, ০৪:৩৪ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
সদর উপজেলার যমুনাবাদে গৃহবধূর রহস্যজনক মৃত্যু চুনারুঘাটে চোরাই সেগুন কাঠ উদ্ধার যুক্তরাজ্যে হবিগঞ্জবাসীর উদ্যোগে ঈদ পূনর্মিলনী “আনন্দ সন্ধ্যা” নবীগঞ্জের বনকাদিপুর আমজাদ ॥ আলী উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আর নেই বঙ্গবন্ধু ছিলেন আধুনিক বাংলার স্বপ্নদ্রষ্টা ॥ এমপি আবু জাহির নবীগঞ্জে বিষাক্ত সাপের কামড়ে গৃহবধু আহত সীমেরগাঁও গ্রামে সংঘর্ষে টেটাবিদ্ধ ২ জনসহ আহত ১০ সৌদি আরবের জেদ্দা কনস্যুলেট এর উদ্যোগে জাতীয় শোক দিবস পালন ॥ বিশেষ অতিথি হিসাবে মন্ত্রী মাহবুব আলীর যোগদান মাধবপুরে সাজাপ্রাপ্ত দুই আসামী গ্রেপ্তার নবীগঞ্জ উপজেলা ও পৌর জাতীয় পার্টির ঈদ পুনর্মিলনী অনুষ্টিত
শচীন্দ্র কলেজের অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে অনিয়ম ও স্বেচ্ছাচারিতার অভিযোগ

শচীন্দ্র কলেজের অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে অনিয়ম ও স্বেচ্ছাচারিতার অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ শচীন্দ্র কলেজের অধ্যক্ষ ফরাশ উদ্দিন শরীফির বিরুদ্ধে নানা অনিয়ম ও স্বেচ্ছাচারিতার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ফলে কলেজে শিক্ষা কার্যক্রম ব্যহত সহ অস্বাভাবিক পরিবেশ বিরাজ করলেও কোন শিক্ষক কর্মচারী প্রকাশ্যে এর প্রতিবাদ করতে পারছেন না। প্রকাশ, শচীন্দ্র কলেজের শিক্ষক-কর্মচারী বেতন-ভাতার সরকারি অংশ পেয়ে থাকলেও কলেজের অভ্যন্তরীণ ফান্ড মারাত্মক সংকটে রয়েছে। ফলে বিগত এক বছর শিক্ষক কর্মচারীগণের কতিপয় অভ্যন্তরীণ আর্থিক সুবিধা বন্ধ ও উৎসব ভাতা ৫০% হ্রাস করা হয়েছে। সরকারি বিধি অনুযায়ী প্রভিডেন্ট ফাণ্ডের ১০% টাকা কলেজ ফান্ড থেকে দেওয়া হত। আর্থিক সংকটের কারণে তা বর্তমানে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। গভর্নিংবডির সভায় বিষয়টি উত্থাপিত হলেও ঘাটতির কারণ অনুসন্ধান না করে শিক্ষক-কর্মচারীর আর্থিক সুবিধাগুলো হ্রাস এমনকি কয়েকটি ক্ষেত্রে বন্ধ করে দেয়ার জন্য অধ্যক্ষ এস কে ফরাস উদ্দিন আহমেদ শরীফীকে পরামর্শ দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়। এর পরও অধ্যক্ষ ফরাস উদ্দিন অনিয়মের আশ্রয় নিয়ে নিজের জন্য দুটো উৎসব ভাতা ১০০% হারে উত্তোলন করেছেন।
অত্র কলেজের সমাজ বিজ্ঞানের সহকারি অধ্যাপক দেবল কুমার চৌধুরী দুই বছর ধরে কানাডায় স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন। অধ্যাপক দেবল কুমার চৌধুরী ২০১৬ সালের জুলাই মাস থেকে কানাডায় সপরিবারে ইমিগ্রেশন ভিসা নিয়ে স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন। অথচ অধ্যক্ষ ফরাস উদ্দিন দুর্নীতির আশ্রয় নিয়ে ২০১৬ সালের জুলাই থেকে ২০১৭ সালের নভেম্বর পর্যন্ত দেবল চৌধুরীর প্রায় ১৭ মাসের বেতন ভাতাদি প্রদান করেছেন। অত্র কলেজ তহবিল ও জনতা ব্যাংক, হবিগঞ্জ প্রধান শাখার ইনডেক্স নং- ৬১৩৭০৮, একাউন্ট নং-১০০৮৩-৬ এর প্রমান। এতে ৭ লক্ষাধিক টাকা উত্তোলন করা হয়েছে। বিষয়টি কলেজ গভর্ণিং বডিঅবহিত হলেও কৌশলে বিষয়টি ধামাচাপা দিয়ে রাখা হয়েছে।
২০১৬ সালের মার্চ মাসে মন্ত্রণালয় প্রেরিত অডিট কমিটি অত্র কলেজে আর্থিক বিষয়াদি অডিট করে আয়-ব্যয়ের মধ্যে বিভিন্ন বিষয়ে অসঙ্গতি ও অনিয়ম খুঁজে পায়। এটি ধামাচাপা দিতে কৌশল অবলম্বন করা হয়। ২০১৭ সালের নভেম্বর মাসে সংশিষ্ট মন্ত্রণালয় থেকে পুনরায় অডিট আসলে একই কৌশলে তাও ধামাচাপা দেয়া হয় বলে সূত্র জানায়। সরকারি অডিট প্রতিবেদন কলেজে প্রেরণ করা হলেও অধ্যক্ষ তা গভর্নিংবডির কোন সভাতেই প্রতিবেদনগুলো উপস্থাপন করেন নি।
এমপিওভুক্ত প্রতিটি কলেজে প্রতিবছরই কলেজ পরিচালনার জন্য একটি অভ্যন্তরীণ আর্থিক বাজেট প্রণয়ন করে গভনিংবডির সভায় অনুমোদন করিয়ে নিতে হয়। কিন্তু ২০১২ সালের পর থেকে কোন প্রকার আর্থিক বাজেট প্রণয়ন করা হয়নি বলে জানা গেছে। সূত্র মতে কলেজে ২০১২ সালে তিনটি বিষয়ে অনার্স কোর্স চালু হয়েছিল। ২০১৫ সালে আরও ৪টি বিষয়ে অনার্স খোলার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছিল। কিন্তু অজ্ঞাত কারণে ওই সিদ্ধান্ত হিমাগারে থাকায় অনার্স খোলার বিষয়টি আজও আলোর মুখ দেখেনি।
সূত্রে জানা যায়, ২০১৭ সালের ৩০ ডিসেম্বর অধ্যক্ষ ফরাশ উদ্দিনের চাকরীর মেয়াদ শেষ হলে পরবর্তী অধ্যক্ষ নিয়োগ দেওয়ার জন্য তাকে ৩ মাসের জন্য অতিরিক্ত দায়িত্ব দেওয়া হয়। বিভিন্ন অজুহাত ও কারণ দেখিয়ে ৮মাস অতিক্রম করে এখনও তিনি বহাল তবিয়তে রয়েছেন।
কলেজ গভর্নিংবডিতে ২ বছর ধরে কোন শিক্ষক প্রতিনিধি নেই। শিক্ষকদের মধ্যে বিভাজন সৃষ্টির কারণে শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচনের প্রক্রিয়া নিয়ে দ্বন্দ্বের কারণে ২০১৬ সনের জুন থেকে ২০১৮ সনের জুন পর্যন্ত দুই বছর গভর্নিং বডিতে শিক প্রতিনিধি দেননি।
বিগত গভর্নিং বডির মেয়াদ গত ৩০ জুন শেষ হয়েছে। সময় মত প্রক্রিয়া গ্রহণ না করায় ২মাস কলেজটিতে কোন গভর্ণিয় বডি ছিল না। অথচ অধ্যক্ষ ফরাসউদ্দিন সময় মত পদক্ষেপ গ্রহন করলে এ অবস্থার সৃষ্টি হতো না।
অধ্যক্ষের এরূপ অনিয়ম ও দুর্নীতির বিষয় অবগত হওয়া সত্ত্বেও কেউ কোনো প্রকার প্রতিবাদ করছে না। এ ব্যাপারে যথাযথ কর্তৃপক্ষ ব্যবস্থা গ্রহণ করে কলেজটিতে স্বাভাবিক পরিবেশ ফিরিয়ে আনার দাবী সচেতন মহলের।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com