রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০৪:৩০ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
শহরে এক রাতে তিন দোকানে চুরি ॥ টায়ার জ্ব¦ালিয়ে অবরোধ শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলার ৫০ শয্যার হাসপাতালের সেবা টিনের ঘরে এক চিকিৎসক দিয়ে চলে ! আইন-শৃংখলা কমিটির সভায় এমপি আবু জাহির ॥ ১২ কোটি টাকায় সংস্কার হচ্ছে হবিগঞ্জ শহরের প্রধান সড়ক হবিগঞ্জ শহরে মাস্ক না পড়ায় ১৪ ব্যক্তিকে জরিমানা প্রদান বাহুবলে ভাবীকে ধর্ষণের চেষ্টা ॥ আত্মহত্যা প্ররোচনা মামলায় শ্বশুর গ্রেপ্তার হবিগঞ্জে নতুন করে ৩ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত এম এ গফুর চৌধুরী কল্যাণ ট্রাস্ট এর সৌজন্যে শীতবস্ত্র বিতরণ নবীগঞ্জ পৌরসভার ২টি উন্নয়ন কাজ উদ্বোধন করলেন মেয়র ছাবির নবীগঞ্জে কৃষকদের মাঝে বিনা মূল্যে বীজ ও সার বিতরণ হবিগঞ্জের পইল গ্রামে রাস্তা সংস্কার কাজে অনিয়মের অভিযোগে মানববন্ধন
নবীগঞ্জে বউ-শ্বাশুড়ি হত্যাকান্ড ॥ শুভ-তালেব’র সাথে আরও লোক থাকতে পারে দাবী গ্রামবাসীর

নবীগঞ্জে বউ-শ্বাশুড়ি হত্যাকান্ড ॥ শুভ-তালেব’র সাথে আরও লোক থাকতে পারে দাবী গ্রামবাসীর

এটিএম সালাম, নবীগঞ্জ থেকে ॥ নবীগঞ্জে জোড়া খুনের ঘটনায় চাঞ্চল্যকর তথ্য ও বর্ণনা দিয়ে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি শেষে ঘাতক জাকারিয়া আহমেদ শুভ ও তালেব মিয়াকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। তাদের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে পুলিশ প্রায় নিশ্চিত হয়েছে যে এই দু’জন ব্যতিত আর কেউ ছিল না। তবুও তদন্ত কর্মকর্তা বিষয়টি আরও অধিকতর খতিয়ে দেখছেন। তবে মামলার বাদী নিহত রুমি বেগমের ভাই পল্লী চিকিৎসক নজরুল ইসলাম এবং গ্রামবাসী দ্রুত সময়ে মধ্যে নির্মম এই হত্যাকান্ডের রহস্য উদঘাটন করায় হবিগঞ্জের পুলিশ সুপার বিধান ত্রিপুরাসহ পুলিশ বাহিনীর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে বলেছেন, এই নির্মম হত্যাকান্ডটি শুধুমাত্র শুভ ও তালেব দ্বারা সংঘটিত হতে পারে এটা বিশ^াস করা কষ্টকর। তাদের ধারনা এদের সাথে আরও ২/১ জন সহযোগিতায় থাকতে পারে। এ বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য ধৃতদের রিমান্ডে এনে আর অধিকতর জিজ্ঞাসাবাদ করলে হয়তোবা অজানা অনেক তথ্য বের হয়ে আসতে পারে। এ ব্যাপারে নিহত মালা বেগমের লন্ডন প্রবাসী একমাত্র ছেলে এবং নিহত রুমি বেগমের স্বামী আখলাক চৌধুরীর সাথে যোগাযোগ করলে, তিনি কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন। পরে খন্ধনরত অবস্থায় বলেন, এ ব্যাপারে তার ধারনার বাহিরে। তবে তিনি ঘাতকদের ফাঁসি দাবী করেন। মামলার বাদী নিহত গৃহবধু রুমি বেগমের ভাই নজরুল ইসলাম জানান, এই হত্যাকান্ডে জ্জ জন জড়িত থাকতে পারে। যদিও শুভ ও তালেব এ ঘটনার দায় তাদের স্বীকারোক্তি দিয়েছে। তবুও পুলিশ তাদেরকে রিমান্ডে আনলে নতুন আরও কিছু তথ্য পেতে পারে বলে তার দাবী। তিনি পুলিশের ভুয়সী প্রশংসাও করেন দ্রুত সময়ের মধ্যে হত্যার মুটিভ উদঘাটন করায়।
উল্লেখ্য, গত রবিবার রাত প্রায় ১১ টার দিকে উপজেলার কুর্শি ইউপির সাদুল্লাপুর গ্রামে দুর্বৃত্তদের হাতে বউ রুমি বেগম ও তার শ্বাশুড়ি মালা বেগম নির্মমভাবে খুন হয়। লোমহর্ষক এই হত্যাকান্ডের ঘটনার পর থেকেই হত্যার মুটিভ উদঘাটনের জন্য পুলিশ তৎপর হয়ে উটে।
এক পর্যায়ে ধৃত ঘাতক জাকারিয়া আহমদ শুভ ও তালেব মিয়া ঘটনার দায় স্বীকার করে বিজ্ঞ আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি প্রদান করে। তারা জানায় তাদের কামভাব চরিত্রার্থ করতে না পেরেই পাষবিকভাবে হত্যা করা হয়েছে বউ-শাশুড়িকে। তাদের দেয়া তথ্যমতে পুলিশ হত্যায় ব্যবহৃত ছুরা ও রক্তমাখা জামা উদ্ধার করেছে। এলাকাবাসী ঘাতকদের ফাসিঁ দাবী করেন।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com