রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৯, ১১:৪২ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
জাতিকে মেধাশূন্য করতে বুদ্ধিজীবীদের হত্যা করা হয়-এমপি আবু জাহির চুনারুঘাটে স্কুল ছাত্রীকে হয়রানীর অভিযোগে যুবকের ১ বছর কারাদন্ড নবীগঞ্জে দীর্ঘদিন পরে সাংবাদিকদের বিরোধের অবসান ॥ প্রেসক্লাবের তফশীল ঘোষণা ॥ ২২ ডিসেম্বর নির্বাচন নবীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রদলের বর্ধিত সভা ও খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভ মোতাচ্ছিরুল ইসলামের প্রচেষ্ঠায় নিজস্ব অর্থায়নে রাস্তা নির্মাণ করছে যাদবপুর ও গোপালপুর গ্রামবাসী শচীন্দ্র কলেজে ১৪ই ডিসেম্বর শহীদ বুদ্ধিজীবি দিবস পালন চুনারুঘাটে রাস্তায় প্রতিবন্ধকতা আউশকান্দি ছাত্রদলের বিক্ষোভ গ্রাম পুলিশের বেতন-ভাতা পর্যায়ক্রমে বৃদ্ধি করা হবে-এমপি মিলাদ গাজী নবীগঞ্জে আনরেজিস্টার্ড ও মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ বিক্রয় বন্ধে মতবিনিময় সভা
আজমিরীগঞ্জে আ.লীগ নেতার মামলায় মুক্তিযোদ্ধা ও লেখকের জামিন মঞ্জুর

আজমিরীগঞ্জে আ.লীগ নেতার মামলায় মুক্তিযোদ্ধা ও লেখকের জামিন মঞ্জুর

শেখ আমির হামজা, আজমিরীগঞ্জ থেকে ॥ একাত্তরে রাজাকারদের ধরে শাস্তি দেওয়ায় এক যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধাকে অভিযুক্ত করে নাজেহাল করেছেন এক আওয়ামী লীগ নেতা। এই ঘটনা বইয়ে তুলে ধরায় লেখক আর ওই মুক্তিযোদ্ধার বিরুদ্ধে মামলাও করেছেন তিনি।
আজমিরীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মিছবাহ উদ্দিন ভুইঁয়ার দায়ের করা ওই মামলায় মঙ্গলবার জামিন পান যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা ইলিয়াস মিয়া ও ‘দাস পার্টির খোঁজে’ বইয়ের লেখক হাসান মোরশেদ।
হাসান মোরশেদ জানান, একাত্তরে ভাটি অঞ্চলে যুদ্ধ করা জগৎজ্যোতি দাসের নেতৃত্বাধিন ‘দাস পার্টি’ নিয়ে গবেষণার জন্য তিনি ২০১৫ সালের জুলাইয়ে হবিগঞ্জের আজমিরিগঞ্জে যান। এ সময় তাঁর কথা হয় দাস পার্টির অন্যতম সদস্য যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা ইলিয়াস মিয়া, আজমিরীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মিছবাহ উদ্দিন ভুইঁয়া ও তাঁর ভাই কাকাইলছেও ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ নুরুল হক ভুঁইয়ার।
মোরশেদ জানান, এ সময় তাঁর সামনেই ইলিয়াস মিয়াকে একাত্তরের রাজাকারদের হত্যা করার জন্য নাজেহাল করেন মিসবাহ ও নুরুল হক। ওই ঘটনার একটি ভিডিওচিত্রে দেখা যায়, মিছবাহ মুক্তিযোদ্ধা ইলিয়াসকে অভিযোগের সুরে বলছেন- ‘এরা নিয়ে মেরে ফেলেছে, মারার কোন কথা ছিলো না। আমরা আটকিয়ে ছিলাম।’ ইলিয়াস মিয়া বলেন, ‘ যারা বাংলাদেশের বিরুদ্ধে কথা বলে, দাস পার্টির নিয়ম হলো, তারা এই মাটির উপর থাকবে না।’ তখন মিসবাহ উত্তেজিত কণ্ঠে বলেন, ‘তাহলে সব রাজাকারকে মারলে না কেনো?’ দাস পার্টিকে নিয়ে হাসান মোরশেদের বই ‘দাস পার্টির খোঁজে’ প্রকাশিত হয় ২০১৬ সালে। বইতে এ ঘটনা তুলে ধরেন মোরশেদ। গত ১৭ অক্টোবর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মিছবাহ উদ্দিন ভুইঁয়া বাদী হয়ে আজমিরীগঞ্জ সিনিয়র জুডিশিয়াল আদালতে মানহানি মামলা দায়ের করেন। আওয়ামী লীগ নেতার দায়ের করা ওই মামলায় মঙ্গলবার দুপুরে আজমিরীগঞ্জ আদালতের বিচারিক হাকিম রাজিব আহমদ তালুকদার লেখক হাসান মোরশেদ ও মুক্তিযোদ্ধা ইলিয়াস মিয়াকে জামিন দেন।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com