রবিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২০, ১১:০৩ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
বানিয়াচংয়ে পূর্ব বিরোধের জের ধরে হামলা ভাংচুর ॥ আহত ১ হবিগঞ্জ পৌরসভার আয়োজনে একুশে বইমেলার প্রথম দিন অতিবাহিত হবিগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের ৭ ইউনিটে সম্মেলনের তারিখ ঘোষণা ॥ নেতাকর্মীদের মধ্যে প্রাণচাঞ্চল্য বাহুবলে হ্যান্ডকাপসহ পিতা-পুত্রের পলায়ন লাখাই মুক্তিযোদ্ধা সরকারী কলেজ মহান একুশে ফেব্রুয়ারি পালন গণফোরাম নবীগঞ্জ উপজেলা ও পৌর শাখার ভাষা শহীদদের স্মরণে পুস্পস্তবক অর্পণ শহরে চিচকে চোরের উপদ্রব বৃদ্ধি প্রায় দিনই ঘটছে ছোট-বড় চুরির ঘটনা শচীন্দ্র কলেজে একুশে ফেব্রুয়ারি উদযাপন মানবপাচার ঃ হবিগঞ্জের ২০ জনের নাম প্রকাশ নবীগঞ্জে সময় পত্রিকার ৬ষ্ঠ বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠান সম্পন্ন
সমাচার পত্রিকার কর্তৃপক্ষের সাথে এমপি আব্দুল মজিদ খানের ভুল বুঝাবুঝির অবসান

সমাচার পত্রিকার কর্তৃপক্ষের সাথে এমপি আব্দুল মজিদ খানের ভুল বুঝাবুঝির অবসান

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ছোট একটি মিথ্যা তথ্যের ভিত্তিতে তৈরি খবরে অনেক নিরীহ সম্মানিত মানুষের সম্মানহানি ঘটতে পারে। ওই ব্যক্তি যতই প্রতিবাদ করুক না কেন, তাঁর সম্মানহানির ক্ষতি পূরণ হয় না। অনেক নিরীহ ভদ্রলোক নিরবে তা সহ্য করে যান। কাজেই সাংবাদিকদের লেখনীতে কোন সম্মানীত ব্যক্তির অহেতুক যাতে সম্মানহানি না হয় সে ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট সকলকে অব্যশই সচেতন থাকতে হবে। একই সাথে কোন লেখনীর মাধ্যমে যুগ যুগ ধরে হবিগঞ্জে প্রতিষ্ঠিত সামাজিক সম্প্রীতি বিনষ্ট না হয় সেদিকেও খেয়াল রাখতে হবে। অতি সম্প্রতি কোন কোন সংবাদ মাধ্যমে অনভিপ্রেত সংবাদ প্রকাশে জনমনে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হচ্ছে। কাজেই এখনই এসবের ইতি টানতে হবে। গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় হবিগঞ্জের জেলা প্রশাসকের সভাকক্ষে আয়োজিত এক অনানুষ্ঠানিক সভায় বক্তারা এ কথা বলেন।
সম্প্রতি হবিগঞ্জ সমাচার পত্রিকায় প্রকাশিত একটি সংবাদকে কেন্দ্র করে সংসদ সদস্য এডঃ আব্দুল মজিদ খান এবং সমাচার কর্তৃপক্ষের মধ্যে ভুলবুঝাবুঝির সৃষ্টি হয়। এ সংবাদ প্রকাশের কারণে তাঁর নির্বাচনী এলাকার জনসাধারণসহ নেতাকর্মীদের মাঝে বিরূপ প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। এ প্রেক্ষিতে সাবেক পৌর চেয়ারম্যান শহীদ উদ্দিন চৌধুরী ও হবিগঞ্জের বয়োজ্যৈষ্ট সাংবাদিকদের মধ্যস্থতায় বিষয়টি মিমাংসার উদ্যোগ নেয়া হয়। এক পর্যায়ে সংসদ সদস্য এডঃ আব্দুল মজিদ খান এর নিষ্পত্তিতে মতামত ব্যক্ত করলে গতকাল সন্ধ্যায় এক সভা আহ্বান করা হয়। সভায় নবাগত জেলা প্রশাসক মনীষ চাকমাসহ প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, সাংবাদিক নেতৃবৃন্দসহ প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক্স মিডিয়ার সাংবাদিকগণ, বিভিন্ন পেশাজীবি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ও রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। সভায় সামাজিক সম্প্রীতি ও আইন শৃংখলা পরিস্থিতি রক্ষায় সাংবাদিকদের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ বলে উল্লেখ করা হয়। এমপি মজিদ খান বলেন, শুধু দৃষ্টিনন্দন প্রেসক্লাব নয়, এর ভেতরে থেকে যারা সাংবাদিকতা করবেন তাদেরকে অবশ্যই দক্ষতার পরিচয় দিতে হবে। তিনি রাজনীতিবিদ ও সাংবাদিকদের মাঝে সৃষ্ট বিরোধ সমাজের ক্ষতি বয়ে আনতে পারে উল্লেখ করে বলেন, এ ব্যাপারে সকলকেই সচেতন থাকতে হবে। সাংবাদিক ও রাজনীতিবিদদের ঐক্যবদ্ধ প্রয়াসের ফলেই সমাজ এগিয়ে যাবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। জেলা প্রশাসক মনীষ চাকমা বলেন, সাংবাদিকদের লেখনীর মাধ্যমে সত্য ও সুন্দর প্রতিষ্ঠা করতে হবে। যারা হলুদ সাংবাদিকতার সাথে জড়িত তাদেরকে হলুদ সাংবাদিকতা পরিহার করার আহ্বান জানান। সভায় সূচনা বক্তব্য রাখেন সাবেক পৌর চেয়ারম্যান আওয়ামী লীগের জাতীয় পরিষদ সদস্য শহীদ উদ্দিন চৌধুরী। অন্যান্যের মাঝে বক্তব্য রাখেন প্রবীন সাংবাদিক এডঃ মনসুর উদ্দিন আহমেদ ইকবাল, প্রতিদিনের বাণীর সম্পাদক মোহাম্মদ শাবান মিয়া, চেম্বার অব কমার্সের প্রেসিডেন্ট মোতাচ্ছিরুল ইসলাম, হবিগঞ্জ জেলা আইনজীবি সমিতির সভাপতি আফিল উদ্দিন ও সাধারণ সম্পাদক লুৎফুর রহমান তালুকদার, পিপি সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সভাপতি সামছুল হুদা, আওয়ামী লীগ নেতা এডঃ আবুল ফজল, আওয়ামী লীগ নেতা সেলিম চৌধুরী, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা মশিউর রহমান শামীম, এডঃ সুলতান মাহমুদ, জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি ডাঃ ইশতিয়াক রাজ চৌধুরী প্রমুখ। সভায় এমপি আব্দুল মজিদ খান ও সমাচার কর্তৃপক্ষের মধ্যে ভুল বুঝাবুজির অবসান হয়।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com