বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ০৬:০৩ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
২০ হাজার মানুষের গ্রামে একটি রাস্তাও পাকা নেই ॥ চরম দুর্ভোগ সাবেক মেয়র জিকে গউছের নামে ভূয়া ইউটিউব চ্যানেল ॥ থানায় জিডি নবীগঞ্জে সাংবাদিক আজাদের মায়ের ইন্তেকাল ॥ বিভিন্ন মহলের শোক নবীগঞ্জে বিদ্যুতপৃষ্টে বৃদ্ধের করুন মৃত্যু ইদুর নিধন অভিযান উপলক্ষে নবীগঞ্জে আলোচনা সভা বানিয়াচঙ্গে সাংবাদিকদের সাথে নবাগত ওসি’র মতবিনিময় কারিতাস সিলেট অঞ্চলের উদ্যোগে বিশ্ব সাদাছড়ি নিরাপত্তা দিবস পালন শায়েস্তাগঞ্জে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত কুদরত নিহত ॥ ৬ পুলিশ আহত বাহুবলের সাবেক চেয়ারম্যান মুদ্দত আলীর বিরুদ্ধে মেয়াদোত্তীর্ণ কাগজ দিয়ে মাটি, বালু উত্তোলনের অভিযোগ আজমিরীগঞ্জে ইমামের পিছনে বসা নিয়ে সংঘর্ষ ॥ মহিলাসহ আহত ১০
নারী নির্যাতন মামলায় শীর্ষে হবিগঞ্জ হ্রাস করতে পুলিশের উদ্যোগ

নারী নির্যাতন মামলায় শীর্ষে হবিগঞ্জ হ্রাস করতে পুলিশের উদ্যোগ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ নারী নির্যাতন মামলার দিক থেকে দেশের শীর্ষ দশ জেলার অন্যতম হচ্ছে হবিগঞ্জ। এখানে মাসে ২০০টি অভিযোগ পাওয়া যায়। মামলা রুজু হয় কমপক্ষে ৩০টি। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই দেখা যায় এসব মামলা মিথ্যা। এই মিথ্যা মামলা কমানো ও প্রকৃত ভোক্তভোগীরা যাতে প্রতিকার পায় তার জন্য এনজিওদেরকে সাথে নিয়ে হবিগঞ্জে ‘নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধ ও মোকাবেলা সম্বনয় কমিটি’ গঠন করা হয়েছে।
শনিবার দুপুরে নিজ কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে হবিগঞ্জের পুলিশ সুপার জয়দেরব কুমার ভদ্র এই তথ্য জানান। এ সময় অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আসম সামছুল আরেফিন, সিনিয়র সহাকারি পুলিশ সুপার সুদ্বীপ্ত রায়, মোঃ সাজিদুর রহমান ও রাসেলুর রহমান, চুনারুঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নির্মলেন্দু চক্রবর্তী ও মাধবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ মুকতাদির হোসেন।
সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ সুপার জয়দেব কুমার ভদ্র জানান, অনেক সময় আদালতে দায়েরকৃত মামলার তদন্তভার পায় বিভিন্ন সংস্থার লোকজন। তারা কোন রকমে একটি তদন্ত করে দায়সারা রিপোর্ট দেয়। থানায় মামলা গেলে তা তদন্ত করে মামলা রুজু করা হয়। ফলে অনেকেই সহজে মামলা করার সুযোগ নেয় আদালতে গিয়ে। তিনি আরও জানান, নারী নির্যাতন মামলার আধিক্য কমাতে পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে নানামুখী পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে।
জেলা পুলিশের মহিলা সদস্যদের নিয়ে গঠিত এই সেলের সার্বিক কার্যক্রম বাস্তবায়নে হবিগঞ্জ উন্নয়ন সংস্থা, ব্র্যাক, জেলা জাতীয় মহিলা সংস্থা ও জেলা মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরও কাজ করবে। আগামী ১ সেপ্টেম্বর থেকে এই সেল কাজ শুরু করবে। এছাড়াও স্বামী-স্ত্রীর বিরোধ নিয়ে কোন অভিযোগ এলে এ বিরোধ চূড়ান্ত রূপ নেয়ার পূর্বে মিমাংসার উদ্যোগ নেবেন।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com