বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯, ০৭:০৮ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
২০ হাজার মানুষের গ্রামে একটি রাস্তাও পাকা নেই ॥ চরম দুর্ভোগ সাবেক মেয়র জিকে গউছের নামে ভূয়া ইউটিউব চ্যানেল ॥ থানায় জিডি নবীগঞ্জে সাংবাদিক আজাদের মায়ের ইন্তেকাল ॥ বিভিন্ন মহলের শোক নবীগঞ্জে বিদ্যুতপৃষ্টে বৃদ্ধের করুন মৃত্যু ইদুর নিধন অভিযান উপলক্ষে নবীগঞ্জে আলোচনা সভা বানিয়াচঙ্গে সাংবাদিকদের সাথে নবাগত ওসি’র মতবিনিময় কারিতাস সিলেট অঞ্চলের উদ্যোগে বিশ্ব সাদাছড়ি নিরাপত্তা দিবস পালন শায়েস্তাগঞ্জে বন্দুকযুদ্ধে ডাকাত কুদরত নিহত ॥ ৬ পুলিশ আহত বাহুবলের সাবেক চেয়ারম্যান মুদ্দত আলীর বিরুদ্ধে মেয়াদোত্তীর্ণ কাগজ দিয়ে মাটি, বালু উত্তোলনের অভিযোগ আজমিরীগঞ্জে ইমামের পিছনে বসা নিয়ে সংঘর্ষ ॥ মহিলাসহ আহত ১০
শ্যালিকাকে বিয়ে \ হবিগঞ্জ চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের পেশকার হামিদ কারাগারে

শ্যালিকাকে বিয়ে \ হবিগঞ্জ চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের পেশকার হামিদ কারাগারে

স্টাফ রিপোর্টার \ যৌতুকের জন্য স্ত্রী নির্যাতন মামলায় হবিগঞ্জের চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের পেশকার আব্দুল হামিদকে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। আব্দুল হামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ ১ম স্ত্রী নাছিমা খাতুনকে ২০ লাখ টাকা যৌতুকের দাবীতে মারপিট করেন। যৌতুকের টাকা না দেয়ায় নাছিমা আক্তারের আপন চাচাতো বোন রোকসানা আক্তারকে কৌশলে ২য় বিয়ে করেন তিনি। ১ম স্ত্রী নাছিমা আক্তারের মামলায় হবিগঞ্জের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আদালতের পেশকার আব্দুল হামিদের বিরুদ্ধে ওয়ারেন্ট ইস্যু করেন। গতকাল বুধবার আদালতে আত্বসমর্পন করেন পেশকার আব্দুল হামিদ। দীর্ঘ শুনানী শেষে বিজ্ঞ আদালত আসামী আব্দুল হামিদের জামিন আবেদন না মঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরন করেন। আব্দুল হামিদের বাড়ি মাধবপুর উপজেলার চৌমুহনী ইউনিয়নের আলাবকসপুর গ্রামে।
২০০৪ সালে আব্দুল হামিদ একই উপজেলার ভান্ডারোয়া গ্রামের হরমুজ আলী মেম্বারের কন্যা সরকারী স্কুল শিক্ষিকা নাছিমা খাতুনকে বিয়ে করেন। তাদের ২টি কন্যা সন্তান রয়েছে। বিয়ের পর থেকেই আব্দুল হামিদ যৌতুকের জন্য স্ত্রীকে নানাভাবে নির্যাতন করে আসছিলেন। এক পর্যায়ে শ্বশুর বাড়ির সহযোগিতায় পেশকারের চাকুরী লাভ করেন আব্দুল হামিদ। তারপরও আব্দুল হামিদ যৌতুকের দাবী থেকে সরে আসেননি। এক পর্যায়ে নাছিমা খাতুনের আপন চাচাতো বোন রোকসানা আক্তারের সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলেন আব্দুল হামিদ। লুকিয়ে তাকে বিয়েও করেন। তবে এ ব্যাপারে রোকসানার বাবা শাহজাহান মিয়া আব্দুল হামিদের বিরুদ্ধে অপহরণ মামলা করেন। শেষ মুহর্তে আদালতে চাকুরী করেও রেহাই মেলেনি আব্দুল হামিদের। অবশেষে তাকে জেল হাজতে যেতে হল স্ত্রীর মামলায়।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com