সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২:১৮ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
অবৈধ লেনদেনের অভিযোগে শায়েস্তাগঞ্জ থানার ওসি ও এক এসআই প্রত্যাহার যুক্তরাষ্ট্র হবিগঞ্জ সদর সমিতির ত্রাণ ও স্বাস্থ্য সামগ্রী বিতরণ সাংবাদিকদের সাথে পরামর্শ সভায় পুলিশ সুপার মোহাম্মদ উল্ল্যা ॥ সকলে মিলে মিশে কাজ করলে সমাজ থেকে সকল অসংগতি দুর করা সম্ভব শহরতলীর আলমবাজার সংলগ্ন তারা মিয়া জামে মসজিদের নির্মাণ কাজ উদ্বোধন যুবলীগ সভাপতি ও তার ভাইকে জড়িয়ে মিথ্যা সংবাদ প্রকাশ করার প্রতিবাদে সভা নবীগঞ্জে প্রয়াত মুক্তিযোদ্ধার সম্পদ গ্রাস করতে মরিয়া প্রভাবশালী মহল আজ আজিজুর রহমান তোতা মিয়ার মৃত্যুবার্ষিকী শহরে দুর্বৃত্তের হামলায় এক ব্যক্তি আহত বৃক্ষ প্রেমিক বানিয়াচঙ্গের ইউএনও মাসুদ রানা মাধবপুরে শিশুর রহস্যজনক মৃত্যু
মাধবপুর পৌরসভা নির্বাচনের ফলাফল প্রত্যাখ্যান হাবিবুর রহমান মানিকের

মাধবপুর পৌরসভা নির্বাচনের ফলাফল প্রত্যাখ্যান হাবিবুর রহমান মানিকের

স্টাফ রিপোর্টার \ মাধবপুর পৌরসভা নির্বাচনে বিএনপি’র পরাজিত মেয়র প্রার্থী হাবিবুর রহমান মানিক নির্বাচনের ফলাফল প্রত্যাখান করেছেন। গতকাল রবিবার তিনি হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান। তিনি বলেন, ১, ৬ ও ৭ নং ভোট কেন্দ্রে পোলিং অফিসারের কাছে আলাদা ব্যালট বাক্স ছিল এবং এর ভিতরে ব্যালট পেপারও ছিল, যার ভিডিও ফুটেজ তার কাছে রয়েছে এবং ভাল অবস্থানে থাকা ৩, ৭, ৮ ও ৯ নং ভোট কেন্দ্রে প্রিজাইটিং অফিসারগণ আর্থিক সুবিধা গ্রহণপূর্বক ভোট কাস্টিং ধীর গতিতে করেছেন। ৭নং ভোট কেন্দ্রে কোন সিরিয়াল না থাকার পরে নির্ধারিত সময়ের পর ৪.৩০ মিনিট পর্যন্ত আওয়ামীলীগ প্রার্থীর ভাইসহ অনেকে এসে প্রিজাইটিং অফিসারগণকে বাধ্য করে ভোট দিয়েছে। ৭, ৩, ৫ ও ৬নং ভোট কেন্দ্রে আমিসহ আমার পোলিং এজেন্টগণকে বের করে দেওয়া হয়। ৭নং ভোট কেন্দ্রে পরবর্তীতে বিজিবির সহায়তায় ৭নং ভোট কেন্দ্রে প্রবেশ করি, ততক্ষণে ভোট গণনা শেষ হয়ে যায়। নির্বাচনের ভোট গণনার আগেই আমার এজেন্টদের কাছ থেকে জোরপূর্বক স্বাক্ষর নেওয়া হয়, তাছাড়া কিছু কিছু জায়গায় নিজেরাই স্বাক্ষর দিয়ে দেয় এবং বের করে দিয়ে পকেটে থাকা নৌকা মার্কা সীল মারা ব্যালট পরিবর্তন করা হয়। যা মুড়ি বইয়ের সাথে মিলালে বেরিয়ে আসবে। ভোট গণনার সময় কোন সাংবাদিককে কন্ট্রোল রুমে প্রবেশ করতে দেওয়া হয়নি। ৭নং ভোট কেন্দ্রে আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এর নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী ৯নং ওয়ার্ডেও যুগ্ম সম্পাদক তাজু মিয়ার নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী এবং ৫, ৬নং ভোট কেন্দ্রে টিটু ও পংকজের  নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী ৬নং ভোট কেন্দ্রে শ্রীদাম দাস এর নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী ভোট কেন্দ্রের ভিতরে এবং বাইরে ভোটারগণকে নৌকায় ভোট দিতে জোরপূর্বক বাধ্য করে। এবং আমার লোকজনকে হুমকি ধামকি দিয়ে বের করে দেয়। এরপরও ধানের শীষে বিপুল ভোটে এগিয়ে থাকায় তারা কারচুপি ও ভোট ডাকাতির আশ্রয় নেয়। বিভিন্ন জায়গায় ভোট কেন্দ্রে প্রথমে ধানের শীষ এগিয়ে থাকলেও পরবর্তীতে পরিকল্পিতভাবে বিভিন্ন  ভোট কেন্দ্রের হিসাব নিকাশ করে তা পরিবর্তন করে নৌকার ভোট বাড়িয়ে দিয়ে নৌকার প্রার্থীকে বিজয়ী ঘোষণা দেওয়া হয়।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com