মঙ্গলবার, ২৬ মে ২০২০, ০৩:১৪ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
শ্রীমঙ্গলে যুবলীগ নেতা সেলিমের উদ্যোগে সাড়ে ৫শ অসহায় মানুষের মাঝে ঈদ সামগ্রী বিতরণ নবীগঞ্জের বিভিন্ন গ্রামে ড. রেজা কিবরিয়ার পক্ষে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ হবিগঞ্জে শেষ হয়েছে ৫দিন ব্যাপি ইয়ূথ এসোসিয়েশন অব ইউকে এর খাদ্য সহায়তা বিতরণ নবীগঞ্জে গৃহহীন দুই বীর সেনা মুক্তিযোদ্ধাকে সেনাবাহিনীর বাসস্থান উপহার আলমগীর চৌধুরীর সৌজন্যে নবীগঞ্জে ১৬৫ পরিবারকে ঈদ উপহার প্রদান নবীগঞ্জে স্বাস্থ্য বিধি অমান্য করায় ভ্রাম্যমান আদালতের জরিমানা “বঙ্গবন্ধু ছাত্র একতা পরিষদ” নেতা রায়হান এর উদ্যোগে ইফতার বিতরণ এখন প্রমান করার সময় মানুষ মানুষের জন্য-মোতাচ্ছিরুল ইসলাম অনাহারী মুখ খাবার তুলে দিচ্ছেন হবিগঞ্জ ছাত্র সমন্বয় ফোরাম বাগুনিপাড়া ডিফেন্স হোল্ডার এ্যাসোসিয়েশন ঈদ উপহার বিতরন
জয়রামপুরে মসজিদ ভাংচুরের ঘটনায় এলাকায় ধর্মপ্রান মুসল্লীরা ফুসে উঠেছে

জয়রামপুরে মসজিদ ভাংচুরের ঘটনায় এলাকায় ধর্মপ্রান মুসল্লীরা ফুসে উঠেছে

স্টাফ রিপোর্টার ॥ হবিগঞ্জ সদর উপজেলার রাজিউড়া ইউনিয়নের ছোট জয়রামপুর গ্রামের মোল্লার বাড়ীর জামে মসজিদ ভাংচুরের ঘটনায় এলাকায় ধর্মপ্রান মুসল্লীরা ফুসে উঠেছে। এ প্রতিবাদের গতকাল বুধবার এলাকার শত শত ধর্মপ্রান মুসল্লীরা হবিগঞ্জ শহরের বিক্ষোভ সমাবেশ ও হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসকের বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করে। স্মারকলিপি’র অনুলিপি এমপি অ্যাডভোকেট আবু জাহির, পুলিশ সুপার, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলার নির্বাহী অফিসারের বরাবরে প্রেরণ করা হয়। স্মারকলিপিতে উল্লেখ করা হয়- ছোট জয়রামপুর মোল্লা বাড়ী প্রকাশিত রতনপুর গ্রামের জামে মসজিদ নিজামপুর ইউনিয়নের ভবানীপুর গ্রামের জামাল মিয়া ও পূর্ব কাটাকালী গ্রামের জলফু মিয়া নেতৃত্বে আশপাশের কয়েকটি গ্রামের একদল লাটিয়াল বাহিনী বিনা প্ররোচনায় গত ১০ এপ্রিল মসজিদের মুসল্লীদের উপর আক্রমন এবং মসজিদের ব্যাপক ক্ষতি করে। এসময় হামলাকারীরা নির্মাণধীন মসজিদের দরজা, জানালার কাঠ, টিনসহ অন্যান্য মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। মুসল্লীসহ এলাকার লোকজন এ ঘটনার প্রতিবাদ করলে হামলাকারী দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র দিয়ে তাদের উপর আঘাত করে। এতে মুসল্লী ও এলাকার নিরীহ লোকজন আহত হয়। আহতদের উদ্ধার করে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়। মসজিদ ভাংচুরের মতো ন্যাক্কারজনক ঘটনায় এলাকার হাজার হাজার ধর্মপ্রান মুসল্লীরা মর্মহত হয়েছে। এমনতাবস্থায় মসজিদ ভাংচুরকারী জামাল মিয়া, জলফু মিয়াসহ অন্যান্যদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিয়ে তাদের গ্রেফতারের দাবি জানান। অন্যথায় এলাকায় ধর্মপ্রান মুসল্লীরা বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তুলবে।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com