সোমবার, ১৯ অগাস্ট ২০১৯, ১২:১১ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
আগস্ট মাস আসলেই মনে দাগ কাটে-মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ পইলে ৭৭টি গরু কুরবানী বাড়িয়ে দিল ঈদের আনন্দ নবীগঞ্জ অপহরণের ৭ দিনেও উদ্ধার হয়নি স্কুল ছাত্রী মাধবপুরে মৃত্যুদন্ড প্রাপ্ত দুর্ধর্ষ ডাকাত এরশাদ আলী গ্রেপ্তার শায়েস্তাগঞ্জে ছেলে ধরা সন্দেহে এক ডাকাতকে গণধোলাই হবিগঞ্জ জেলা পুলিশ বনাম জেলা খেলোয়ার কল্যাণ সমিতির মধ্যে ফুটবল টুর্নামেন্ট কাশ্মিরী মুসলমানদের অধিকার অবিলম্বে ফিরিয়ে দিন ॥ আহলে সুন্নাত ওয়াল জামায়াত সমন্বয় পরিষদ জ্যোতির্বিজ্ঞানী অধ্যাপক ড. দীপেন ভট্টাচার্য্যরে ॥ বক্তৃতা শুনে বিজ্ঞান চর্চায় আগ্রহ বেড়েছে হবিগঞ্জের শিক্ষার্থীদের ধুলিয়াখাল-মাহমুদপুর বাইপাস সড়ক টমটম চুরির অভিযোগে যুবক আটক হবিগঞ্জে রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির রক্তদান কর্মসূচী ও শোক সভা
নবীগঞ্জে বিবিয়ানায় উত্তেজনা গ্যাসের দাবিতে অবরোধ কর্মসূচী

নবীগঞ্জে বিবিয়ানায় উত্তেজনা গ্যাসের দাবিতে অবরোধ কর্মসূচী

এম এ বাছিত, নবীগঞ্জ থেকে ॥ নবীগঞ্জের ঘরে ঘরে বিবিয়ানায় গ্যাস, কর্মসংস্থান ও জনপদের উন্নয়নের দাবিতে ২২ সেপ্টেম্বর মহাসড়কে অবরোধ কর্মসূচী নিয়ে টান টান উত্তেজনা বিরাজ করছে। শনিবার বিকেলে আয়োজিত প্রতিকী অনশন ও প্রতিবাদ সভায় এ কর্মসূচী দেয়া হয়। শেভরণ ও সরকারের চুক্তিবদ্ধ নীতিমালার ভিত্তিতে স্থানীয় দাবি নিয়ে রাজনৈতিক ও সামাজিক সংগঠনের তরফ থেকে দীর্ঘদিন ধরে
বিভিন্ন কর্মসূচী পালিত হচ্ছে। এদিকে, জেলা প্রশাসনের তরফ থেকে গত বৃহস্পতিবার আয়োজিত সভায় আন্দোলন ও কর্মসূচীর নামে বিশৃংখলার অভিযোগ নিয়ে কঠোর হুশিয়ারী দেয়া হয়। প্রশাসন ও জনতার পৃথক বৈঠক নিয়ে উদ্বেগ, উৎকণ্ঠা দেখা দিয়েছে। গ্যাস উত্তোলনকারী প্রতিষ্ঠান শেভরন, জেলা প্রশাসন ও স্থানীয় সূত্র জানায়, উপজেলার ঘরে ঘরে গ্যাসসহ স্থানীয় পর্যায়ে বিভিন্ন কর্মসূচী পালিত হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী ও জ¦ালানী মন্ত্রণালয়ে একাধিক স্মারকলিপি দেয়া হয়। গ্যাস উত্তোলনে নিয়োজিত শেভরনের বিরুদ্ধে জনপদের উন্নয়ন এবং কর্মসংস্থান নিয়ে প্রতিশ্র“তি ভঙ্গের অভিযোগ রয়েছে। এছাড়াও গ্যাসের দাবি নিয়ে সরকারের নীরবতায় ক্ষোভের সঞ্চালন হয়েছে। এনিয়ে গত বৃহস্পতিবার মহাসড়কের আউশাকান্দি রহমান কমিউনিটি সেন্টারে জেলা প্রশাসকের তরফ থেকে এক বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বিবিয়ানায় নিয়োজিত বিভিন্ন ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান ছাড়াও বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার লোকজন সভায় অংশ নেয়। সভাপতিত্ব করেন হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসক মোঃ জয়নাল আবেদীন। উপস্থিত ছিলেন, নবাগত পুলিশ সুপার জয়দেব কুমার ভদ্র, শেভরন বাংলাদেশের পরিচালক (এক্সটার্নাল অ্যাফেয়ার্স) মোঃ নাসের আহমদ, উপজেলা চেয়ারম্যান আলমগীর চৌধুরী, উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) মোহাম্মদ মাহমুদুল হক, হবিগঞ্জ প্রেসক্লাব সভাপতি মোঃ নাহিজ, নবীগঞ্জ থানার ওসি মোঃ লিয়াকত আলী, স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ দিলাওর হোসেন প্রমূখ। জেলা প্রশাসক জয়নাল আবেদীন বলেন, বিবিয়ানায় কর্মরত প্রায় তিন হাজার কর্মকর্তা ও শ্রমিকের মধ্যে স্থানীয় পর্যায়ের ১২শ লোক কর্মরত রয়েছে। এছাড়াও প্রায় ২৫টি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান বিভিন্ন কর্মকান্ডে শেভরনের উপর চাপ প্রয়োগ করছে। এর ফলে গ্যাস উৎপাদন ব্যাহত হয়। গ্যাসের দাবি নিয়ে সরকারের উচ্চ পর্যায়ে আলোচনা চলছে। এনিয়ে শেভরনের কিছুই করার নেই। অহেতুক জামেলা তৈরীর না করার জন্য স্থানীয়দের হুশিয়ার করেন। ওদিকে, জেলা প্রশাসক কর্তৃক আয়োজিত বৈঠকের একদিন পর সচেতন নাগরিক সমাজের ব্যানারে মহাসড়কের কিবরিয়া স্কয়ারে প্রতিকী অনশন, মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভাপতিত্ব করেন শাহনুর আলম। আয়োজিত সভায় স্থানীয় সাংসদ মুনিম চৌধুরী বাবু, আওয়ামীলীগ সভাপতি ইমদাদুর রহমান মুকুল, নবীগঞ্জ পৌর বিএনপির সভাপতি ও মেয়র (ভারপ্রাপ্ত) আলহাজ¦ ছাবির আহমদ চৌধুরী, প্রয়াত এমপি দেওয়ান ফরিদগাজী তনয় শাহ নেওয়াজ মিলাদ গাজীসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামাজিক সংগঠনের নেতারা অংশ নিয়ে পাল্টা হুশিয়ারী দেন। বক্তারা ১৫ দিনের মধ্যে গ্যাসসহ বিভিন্ন দাবি বাস্তবায়নের আহবান জানান। অন্যথায় আগামী ২২ সেপ্টেম্বর মহাসড়ক অবরোধের ঘোষণা দেয়া হয়। পাল্টাপাল্টি সভা ও পরস্পর বিরোধী অবস্থান নিয়ে উদ্বেগ উৎকণ্ঠা দেখা দিয়েছে। শেভরন সূত্র জানায়, সরকার চাইলে গ্যাস দিতে আপত্তি নেই। এছাড়া আমাদের কিছুই করার নেই। জনপদের উন্নয়নে শিক্ষা ও স্বাস্থ্য সেবায় যথেষ্ট অবদান রেখেছে শেভরন। উল্লেখ্য, শেভরন ৩টি ফিল্ড থেকে প্রতিদিন গড়ে প্রায় ৮০০মিলিয়ন ঘনফুট গ্যাস জাতীয় গ্রীডে সরবরাহ করছে। ১৯৯৭ সালে আবি®কৃত কুশিয়ারা নদীর বিবিয়ানা প্রশাখায় ত্রিমাত্রিক ভূতাত্বিক জরিপ চালিয়ে গ্যাসের সন্ধান পায় মার্কিন কোম্পানী অক্সিডেন্টাল। প্রাথমিকভাবে ৪০ একর ভূমি অধিগ্রহণ করে ওই বছরই ড্রিলিং কাজ শুরু করে। সরকারী অনুমোদন সাপেক্ষে ’বিবিয়ানা গ্যাসক্ষেত্র’ নামে খননের প্রাথমিক কাজ শুরু হয়। ৫টি কুপ খননের পর ২০০০ সালে অক্সিডেন্টাল বিবিয়ানার দায়িত্ব ইউনিকলের নিকট হস্তান্তর করে। ইউনিকল ২০০৫ সালে অপর মার্কিন কোম্পানী শেভরনের নিকট সার্বিক দায়িত্ব ছেড়ে দেয়। ২০০৭ সালে ৫ই মার্চ জাতীয় গ্রীডে বিবিয়ানার গ্যাস সঞ্চালনের কাজ শুরু হয়।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com