বৃহস্পতিবার, ২৮ মে ২০২০, ০২:১৬ পূর্বাহ্ন

কতিথ অপহৃত ফরিদ বলছে ‘আমাকে কউ অপহরণ করেনি’ মাধবপুরে প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে অপহরন মামলা হোটেলে কর্মরত অবস্থায় যুবক উদ্ধার

কতিথ অপহৃত ফরিদ বলছে ‘আমাকে কউ অপহরণ করেনি’ মাধবপুরে প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে অপহরন মামলা হোটেলে কর্মরত অবস্থায় যুবক উদ্ধার

মাধবপুর প্রতিনিধি ॥ মাধবপুর উপজেলার নোয়াপাড়া ইউনিয়নের কড়রা গ্রামে প্রতিপক্ষকে ফাঁসাতে নিজ ছেলেকে অপহরন অভিযোগ এনে আদালতে মামলা দায়ের করার পর গতকাল বুধবার রাতে পৌর এলাকায় একটি হোটেলে কর্মরত থাকা অবস্থায় কথিত অপহৃতকে উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ।
পুলিশ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার কড়রা গ্রামের আব্দুল হক ও খুরশেদ আলীর মধ্যে জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধ ও মামলা মোকদ্দমা চলে আসছিল। এর জের ধরে খুরশেদ আলী তার প্রতিপক্ষকে ফাঁসানোর উদ্দেশ্যে ২ সেপ্টেম্বর বিকালে তার ছেলেকে আব্দুল গনি, আব্দুল হকসহ অন্যান্যরা অপহরন করার অভিযোগ এনে গত ১৫ সেপ্টেম্বর হবিগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুন্যালে মামলা দায়ের করে। এ দিকে গোপন সূত্রে খবর পেয়ে মাধবপুর থানার এস আই জাহিদুল হক বুধবার রাত প্রায় সাড়ে ৮টার দিকে পৌর এলাকার একটি সিএনজি স্টেশন এর পাশে বরকত হোটেলে কর্মরত অবস্থায় কথিত অপহৃত ফরিদ মিয়াকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। আটককৃত ফরিদ পুলিশকে জানায়, তার পিতা গালমন্দ করায় সে বাড়ী থেকে পালিয়ে এসে গত ২২ আগষ্ট পৌর এলাকার বরকত হোটেলে মাসিক ১৫’শ টাকায় চাকুরী নেয়। তাকে কেউ অপহরন করেনি।
এ ব্যাপারে মাধবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ অমল কুমার ধর হবিগঞ্জ এক্সপ্রেসকে জানান, আমাদের কাছে মামলার কোন আদেশ আসেনি। তবে আসামি পক্ষের কাছ থেকে আমরা অবগত হয়ে ফরিদ মিয়াকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়। রাতেই ফরিদ মিয়াকে তার অভিবাভকের কাছে দিয়ে দেয়া হবে বলেও জানান তিনি।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com