শনিবার, ০৮ অগাস্ট ২০২০, ১২:০১ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
বঙ্গমাতার ৯০তম জন্মবার্ষিকী আজ হবিগঞ্জ প্রেসক্লাবে মতবিনিময় সভায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি কামাল উদ্দিন সবুজ ॥ বর্তমান অবস্থায় ঠিকে থাকতে হলে কোয়ালিটি সাংবাদিকতার উপর নজর দিতে হবে বানিয়াচংয়ে স্বামীর লাথিতে স্ত্রী খুন ॥ ঘাতক স্বামী আটক নবীগঞ্জে কিশোরীর আত্মহত্যা অধিকাংশ টমটম চালকই কিশোর ॥ ঘটছে দুর্ঘটনা নবীগঞ্জের দিলীপ ভট্টাচার্য্যের মৃত্যুতে আনন্দ নিকেতনের শোক আজমিরীগঞ্জে বাল্যবিয়ে পণ্ড বর-কনের বাবাকে জরিমানা করোনামুক্ত হলেন নবীগঞ্জের ইউপি চেয়ারম্যান আবু সিদ্দিক নবীগঞ্জের দিলীপ ভট্টাচার্য্য আর নেই ॥ বিভিন্ন মহলের শোক নবীগঞ্জে প্রতি পক্ষের হামলার আহত ৪
নবীগঞ্জে মিথ্যা তথ্য দিয়ে সংবাদ সম্মেলন ॥ প্রতিবাদে গ্রামবাসীর বৈঠক ॥ তীব্র নিন্দা

নবীগঞ্জে মিথ্যা তথ্য দিয়ে সংবাদ সম্মেলন ॥ প্রতিবাদে গ্রামবাসীর বৈঠক ॥ তীব্র নিন্দা

নবীগঞ্জ প্রতিনিধি ॥ নবীগঞ্জ উপজেলার দীঘলবাক ইউনিয়নের কারখানা গ্রামের আব্দুল বাহার (৩৮) নামের এক ব্যক্তি দীর্ঘদিন যাবত মাদক সেবন ও ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে বলে গ্রামবাসী অভিযোগ করেছেন। এতে এলাকার যুব সমাজ বিপথগামী হচ্ছে। এলকাবাসী আব্দুল বাহারের বিরুদ্ধে মাদক ব্যবসা ও মাদক সেবন ও ভুমি জবর দখলের অভিযোগ এনে নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নবীগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ এর নিকট তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের দাবী জানিয়েছেন। শতাধিক লোকের স্বাক্ষরসহ মোঃ আব্দুল ছালিক ও নামদার মিয়া কারখানা গ্রামবাসীর পক্ষে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।
অভিযোগে উল্লেখ বলা হয়েছে, আব্দুল বাহার মাদক ব্যবসায়ী ও মাদক সেবী। তার বেপরোয়া চলাফেরায় গ্রামের সাধারণ মানুষ অতিষ্ট হয়ে উঠছেন। গ্রামের পঞ্চায়েতসহ কাউকে পরোয়া না করায় সাধারন মানুষের মাঝে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে বাহারের খুটির জোর কোথায় ? সে গ্রাম পঞ্চায়েতের ভূমি জবর দখল করার জন্য মাটিকেটে আইল তৈরী করলে এতে গ্রামবাসী বাধা প্রদান করেন। এতে বাহার ক্ষিপ্ত হয়ে নিজের অপকর্ম ঢাকতে উল্টো গ্রামবাসীর বিরুদ্ধে ভূমি জবর দখল ও একঘরে করে রাখার অভিযোগ এনে ভূল তথ্য দিয়ে মিথ্যা সংবাদ সম্মেলন করে। বাহার গ্রামের পঞ্চায়েতের ভূমি জবরদখলের বিষয়টি গ্রামবাসীর শতাধিক লোকের স্বাক্ষরসহ গত ২২ জুন জেলা প্রশাসক, নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার, থানা সহ বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ দায়ের করা হয়। এছাড়া বাহার সবসময় দেশীয় অস্ত্র নিয়ে চলাফেরা করে। তার নিজ বাড়িতে মাদক ব্যবসা ও মাদক সেবন করে আসছে বলেও অভিযোগ রয়েছে। এতে এলাকার উঠতি বয়সের যুবক, স্কুল-কলেজের ছাত্র বিপথগামী হচ্ছে। অনেকে অপরাধমূলক কর্মকান্ডে জড়িয়ে পড়ছে বলেও অভিযোগে উল্লেখ রয়েছে। বাহারকে এসব অবৈধ ব্যবসা না করার জন্য গ্রামবাসীর পক্ষ থেকে বারবার নিষেধ করা হলেও এতে কোন কাজ হয়নি বরং তার ব্যবসা আরো বাড়িয়ে চলছে। স্থানীয় বিচার-শালিশের মাধ্যমে তাকে অনেকবার নিষেধ করা হলেও সে এতে কোন কর্ণপাত করেনি। এছাড়া সপ্তাহে ২/৩ দিন তার বাড়িতে মাদকের আসর বসে বলেও সুত্রে জানা গেছে। এলাকার লোকজন এসব অপকর্মের প্রতিবাদ করলে তাদের বিভিন্ন প্রকার হুমকি ও মামলা দিয়ে ফাসানোর ভয় প্রদর্শন করে। বাহারের বিরুদ্ধে এলাকার লোকজন লিখিত অভিযোগ দায়ের করায় বাহার নিরীহ মানুষকে ফাঁসানোর ফন্দি আটে। এরই জের ধরে গত ১ জুলাই বুধবার বাহার সংবাদকর্মীদের ভুল তথ্য দিয়ে তার ছোট ভাই আব্দুল আউয়াল ও তার চাচা ফয়জুর রহমানকে দিয়ে নবীগঞ্জ প্রেসক্লাবে তাদেরকে একঘরে করে রাখা ও ভুমি জবর দখলের সম্পূর্ন মিথ্যা তথ্য দিয়ে সংবাদ সম্মেলন করে। একঘরে করে রাখার বিষয়টি যে মিথ্যা তা থানা পুলিশ তদন্ত করলেই বেড়িয়ে আসবে বলেন জানান গ্রামবাসী। এছাড়া বাহারের ভাই আউয়াল গ্রামবাসীর বিরুদ্ধে চাদাদাবী, ষড়যন্ত্রমুলক মিথ্যা মামলা, হুমকি ধামকির যে অভিযোগ এনেছে এর তীব্র নিন্দা জানিয়ে সত্য উদঘাটন করে বস্তুনিষ্ট সংবাদ প্রকাশের জন্য সাংবাদিক ভাইদের প্রতি অনুরোধ জানান গ্রামবাসী।
সংবাদ সম্মেলনের বিষয়টি পরদিন গ্রামবাসীর দৃষ্টিগোছরে আসলে তারা পুনরায় মাদক ব্যবসায়ী বাহারের বিরুদ্ধে প্রশাসনিকভাবে জোরালো ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য হবিগঞ্জ পুলিশ সুপারের হস্তক্ষেপ কামনা করছেন।
গ্রামবাসী সুত্রে জানা যায়, মাদক ব্যবসায়ী বাহারের বড় ভাই আব্দুল কাইয়ুম দীর্ঘ ২৫ বছর যাবত মানসিক ভারসাম্যহীন অবস্থায় আছে। ইদানিং আব্দুল কাইয়ুমকে প্রায়ই মারধোরের অভিযোগ রয়েছে বাহারের বিরুদ্ধে। তাই গ্রামবাসীর ধারনা মানষিক ভারসাম্যহীন আব্দুল কাইয়ুমকে অঘটন ঘটিয়ে এর দায় গ্রামবাসীর উপর চাপানোর চেষ্টা করতে পারে বাহার। নবীগঞ্জ থানা পুলিশকেও বিষয়টি অবগত করা হয়েছে। মাদকের ছোবলে যুবকসহ এলাকার বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার লোকদের স্বার্থে মাদক বিক্রেতা আব্দুল বাহারের বিরুদ্ধে দ্রুত আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের দাবী জানান এলাকাবাসী।
এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার বিশ্বজিত কুমার পাল বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। নবীগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জকে বিষয়টি তদন্ত করতে দায়িত্ব দিয়েছি। অভিযোগ সত্য প্রমাণ হলে অবশ্যই বাহারের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com