রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১১:১৮ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম ::
অবৈধ লেনদেনের অভিযোগে শায়েস্তাগঞ্জ থানার ওসি ও এক এসআই প্রত্যাহার যুক্তরাষ্ট্র হবিগঞ্জ সদর সমিতির ত্রাণ ও স্বাস্থ্য সামগ্রী বিতরণ সাংবাদিকদের সাথে পরামর্শ সভায় পুলিশ সুপার মোহাম্মদ উল্ল্যা ॥ সকলে মিলে মিশে কাজ করলে সমাজ থেকে সকল অসংগতি দুর করা সম্ভব শহরতলীর আলমবাজার সংলগ্ন তারা মিয়া জামে মসজিদের নির্মাণ কাজ উদ্বোধন যুবলীগ সভাপতি ও তার ভাইকে জড়িয়ে মিথ্যা সংবাদ প্রকাশ করার প্রতিবাদে সভা নবীগঞ্জে প্রয়াত মুক্তিযোদ্ধার সম্পদ গ্রাস করতে মরিয়া প্রভাবশালী মহল আজ আজিজুর রহমান তোতা মিয়ার মৃত্যুবার্ষিকী শহরে দুর্বৃত্তের হামলায় এক ব্যক্তি আহত বৃক্ষ প্রেমিক বানিয়াচঙ্গের ইউএনও মাসুদ রানা মাধবপুরে শিশুর রহস্যজনক মৃত্যু
নবীগঞ্জ-রুদ্রগ্রাম সড়কের সংস্কার কাজ দীর্ঘ ১ বছরেও সম্পন্ন হয়নি

নবীগঞ্জ-রুদ্রগ্রাম সড়কের সংস্কার কাজ দীর্ঘ ১ বছরেও সম্পন্ন হয়নি

ছনি চৌধুরী, নবীগঞ্জ থেকে ॥ দীর্ঘ ১ বছর ধরে শেষ হচ্ছে না নবীগঞ্জ উপজেলার গুরুত্বপূর্ণ নবীগঞ্জ-রুদ্রগ্রাম সড়কের সংস্কার কাজ। এলজিইডির কার্যালয় থেকে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে বারবার তাগিদ দেওয়া হলেও তারা কোন কর্ণপাত করছে না। তারা নিজেদের মতো করে ধীর গতিতেই কাজ করছে। ফলে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে স্থানীয় বাসিন্দাদের। তবে সংস্কার কাজ কবে শেষ হবার কথা ছিল এমন প্রশ্নের কোন উত্তর মেলেনি নবীগঞ্জ উপজেলা এলজিইডি কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে। এদিকে ১ বছরেও সংস্কার কাজ শেষ না হওয়ায় চরম ক্ষোভ দেখা দিয়েছে স্থানীয়দের মাঝে। বিশেষ করে ধুলো-বালিতে নাকাল হচ্ছেন শিশু-কিশোরেরা। বাড়ছে নানা রোগ বালাই। বয়স্করাও শ্বাসকষ্টসহ নানা রোগে আক্রান্ত হচ্ছেন। কবে নাগাদ সড়কের সংস্কার কাজ শেষ হবে এনিয়ে হতাশায় লোকজন।
জানা গেছে, প্রতিদিন নবীগঞ্জ-রুদ্রগ্রাম সড়ক দিয়ে উপজেলা পাহাড়ি অঞ্চল খ্যাত দিনারপুর পরগণার দেবপাড়া, গজনাইপুর, পানিউমদা ও বাউসা ইউনিয়নের প্রায় শতাধিক গ্রামের স্কুল-কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থীসহ প্রতিদিন হাজার হাজার জনসাধারণ নবীগঞ্জ শহরে যাতায়াত করে থাকেন। এমনকি স্ট্যান্ডের মাধ্যমে কয়েক শতাধিক সিএনজি অটোরিকশা চলাচলের পাশাপাশি, টমটম, অটো রিকশাসহ বিভিন্ন যানবাহন চলাচল করে। সূত্রে জানা যায়, ২০১৮ সালের শেষের দিকে নবীগঞ্জ-রুদ্রগ্রাম সড়কের প্রায় সাড়ে ১০ কিলোমিটার অংশ জুড়ে ৮ কোটি ৫১ লক্ষ টাকা ব্যায়ে সংস্কার কাজের টেন্ডার হয়। টেন্ডারে পায় হবিগঞ্জের ঠিকাদার মিজানুর রহমান শামীমের প্রতিষ্ঠান মের্সাস হাসান বিল্ডার্স। কার্যাদেশ পাওয়ার পর গত ২০১৮ সালের ৩০ নভেম্বর থেকে এ সড়কের সংস্কার কাজ শুরু করে ঠিকাদরি প্রতিষ্ঠান। শুরু থেকেই প্রতিষ্ঠানটি ধীরে ধীরে এ রাস্তার কাজ করে আসছে বলে অভিযোগ স্থানীয়দের। চলতি বছরের গত ৩০ জুলাই কাজ সম্পন্ন করার সময়সীমাও শেষ হয়ে গেছে। কিন্তু অধিকাংশ কাজ এখনও বাকি রয়ে গেছে । ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের ধীর গতির কারণে নবীগঞ্জ উপজেলা এলজিইডির কার্যালয় থেকে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে একাধিক বার চিঠি দিলেও চিঠির কোনো জবাব পায়নি এলজিইডি অফিস। অথচ ১ বছর যাবৎ সড়কটি ধীরগতিতে সংস্কার কাজ করায় যাতায়েতে বিড়ম্ভনায় পরতে হয় সাধারণ যাত্রীদের। ফারহানা আক্তার নামে এক কলেজে পড়ুয়া শিার্থী জানান, অনেকদিন ধরে রাস্তার কাজ চলছে, দুদিন কাজ হয় বাকি ১৫-২০ দিন কাজ বন্ধ থাকে, ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান তাদের যখন মন চায় তখনই কাজ করে বাকিটা সময় কাজ বন্ধ করে রাখে। এতে তিব্র ধুলাবালিতে চলাচল করতে অনেক কষ্ট হয়। পূজা নামের আরেক শিক্ষার্থী জানান, প্রায় বছর খানেক ধরে রাস্তার কাজ চলছে, কিন্তু শেষ হচ্ছে না এর ফলে যাতায়াত করতে আমাদের খুব কষ্ট হয়। ধুলাবালিতে অনেক কষ্ট হচ্ছ। ওই রাস্তা দিয়ে চলাচলকারী দিনারপুর কলেজের অধ্যক্ষ তনুজ রায় বলেন, প্রতিদিন নবীগঞ্জ-থেকে কলেজে যাওয়ার পথে আইনগাঁও হয়ে যেতে হয়, রাস্তায় দীর্ঘদিন ধরে সংস্কার কাজ হচ্ছে। কিন্তু কবে নাগাদ শেষ হবে, কাজের গতি দেখে তা বুঝা যাচ্ছে না। প্রচ- ধুলাবালির কারণে শিক্ষার্থীসহ সাধারণ মানুষের অনেক রোগবালাই দেখা দিচ্ছে। এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ উপজেলা এলজিইডির প্রকৌশলী সাব্বীর আহমেদ বলেন, নবীগঞ্জ-রুদ্রগ্রাম সড়কটি একটি জনগুরুত্বপূর্ণ সড়ক সেজন্য আমরা ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানকে চাপ দিচ্ছি যাতে দ্রুত কাজটি সম্পন্ন করে। আশা করি দ্রুত কাজ সম্পন্ন হবে। সংস্কার কাজ সম্পন্ন করার শেষ তারিখ কবে ছিল ? এমন প্রশ্নের জবাবে এ প্রকৌশলী বলেন, তা তিনি জানেন না কারণ তিনি নতুন যোগদান করেছেন।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2013-2019 HabiganjExpress.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com